আ’লীগের নেতাকর্মীরা শপথ নিলেন নির্বাচনে নৌকার বিজয় নিয়েই ঘরে ফিরবেন


চকরিয়া প্রতিনিধি:

কক্সবাজারের চকরিয়ায় উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের ২নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের উদ্যোগে বৃহস্পতিবার বিকালে এক বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ জাফর আলম বিএ(অনার্স)এম এ।

অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দিন চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি সাবেক ছাত্রনেতা সরওয়ার আলম, যুগ্ম সম্পাদক শাওনেওয়াজ তালুকদার, সাংগঠনিক সম্পাদক মিজবাউল হক, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক ডা. মীর আহমদ হেলালী, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক শফিকুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক বেলাল আজাদ, সহ-সভাপতি বাহাদুর হক, আওয়ামী লীগ নেতা জয়নাল আবেদিন মেম্বার, মাস্টার কবির, ফজলুল আজিম,  ভুট্টো, আয়াছ, জামাল উদ্দিন, নুরুল কবির, মাতামুহুরী আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আজিজুর রহিম, ইউপি মেম্বার তারেক, ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আবু তৈয়ব প্রমুখ। এছাড়া সভায় ২ ও ৩নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ কমিটির নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন।

সভায় প্রধান অতিথি চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব জাফর আলম বলেছেন, শেখ হাসিনার সফল নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সরকার রাষ্ট্র ক্ষমতায় আসার পর থেকে চকরিয়া-পেকুয়া উপজেলায় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক দক্ষতা আগের চেয়ে অনেক শক্তিশালী হয়েছে। বিএনপি-জামাত জোট আমলে দলের নেতাকর্মীরা বিপদে থাকলেও সেইদিন কেউ তাদের খবর নেয়নি। আমি দৃঢ়কণ্ঠে বলতি পারি, চকরিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের দায়িত্ব নেয়ার পর থেকে আমি নেতাকর্মীদের বিপদে-আপদে সুখে দুঃখে আছি। আমি নেতাকর্মীদের ফেলে, সংগঠনকে ফেলে রাজনীতির মাঠ থেকে সরে যায়নি।

তিনি বলেন, ২০১৩ সালে চকরিয়ার রাজপথে নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে আমি জোটের অপরাজনীতির বিরুদ্ধে অবস্থান নিই। সরকারের উন্নয়ন কাজ যাতে বাঁধাগ্রস্ত না হয় সেইজন্য সাংগঠনিকভাবে অপশক্তির জবাব দিই। কিন্তু সেইদিন যারা রাজপথে ছিলনা, আজকে তারাই দলের ভেতর বিভেদ সৃষ্টি ও নেতাকর্মীদের মাঝে বিভ্রান্তির ফুলঝুড়ি ছড়াচ্ছে। বিজয়ের অভিষ্ট লক্ষ্য অর্জন করতে হলে জনগণের ভালবাসা ও আস্থা অর্জন করতে হবে। দলের সকলস্তরের নেতাকর্মী ও জনগণের ভালবাসা নিয়ে আগামী দিনে চকরিয়া-পেকুয়া আসনটি পুনরুদ্ধার করতে আমাদেরকে কাজ করতে হবে। যাতে এই আসনে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করে দলের সভানেত্রী শেখ হাসিনাকে উপহার দিতে পারি।

তিনি বলেন, চকরিয়া-পেকুয়া জনপদের আওয়ামী লীগের প্রতিটি নেতাকর্মী এবার শপথ নিয়েছেন উন্নয়নের প্রয়োজনে আগামী নির্বাচনে এখানে নৌকা বিজয় নিশ্চিত করেই তারা ঘরে ফিরবেন। তাই আসুন সকল অহংকার আর ভেদাভেদ দুর করে আগামী নির্বাচনে শেখ হাসিনা পুনরায় রাষ্ট্র ক্ষমতায় নিতে সকলে মিলেমিশে কাজ করি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *