২০৩০ সালের মধ্যে দেশ থেকে দারিদ্র দূর করবো: রাশেদ খান মেনন


 

চকরিয়া প্রতিনিধি:

সমাজকল্যাণ মন্ত্রী ও ওয়াকার্স পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি রাশেদ খান মেনন (এমপি) বলেছেন, মহান মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে সামাজিক মর্যাদা, মানবিক ও সাম্যের সমাজ গঠনের যে ঘোষণাপত্র আমরা দিয়েছিলাম স্বাধীনতার ৪৭ বছর পরও সেই ঘোষণাপত্র বাস্তবায়ন করতে পারিনি। বাংলাদেশ উন্নয়নশীল দেশের কাতারে যাওয়ার পথে ওইসময়েও দেশে শিক্ষিত বেকারের সংখ্যা বাড়ছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বেকার ভাতার প্রচলন রয়েছে। তাই বেকারদের অস্থায়ী বেকার ভাতা না দিয়ে তাদের স্বাবলম্বী করতে স্থায়ী সমাধান করার দাবি জানাচ্ছি।

শুক্রবার বিকেল সাড়ে ৫টায় কক্সবাজারের চকরিয়া পৌরসভার বিজয় মঞ্চে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, স্বাধীনতার পর জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশ থেকে ২২পরিবার মুক্ত করার ঘোষণা দিয়েছিলেন। কিন্তু এখন ২২ হাজারের পরিবারের সৃষ্টি হয়েছে, যারা দুর্ণীতির মাধ্যমে লুটেপুটে খাচ্ছে। দেশকে বড় ধরনের দুর্ণীতিমুক্ত করতে পারলে দেশের প্রবৃদ্ধি ১০ শতাংশে উন্নিত হবে।

মন্ত্রী বলেন, দেশ যখন উন্নয়নশীল দেশের দিকে অগ্রসর হচ্ছে ঠিক সেসময় আমাদের বেকার তরুণরা মাদকাসক্ত, সন্ত্রাসী ও জঙ্গিবাদের দিকে আকৃষ্ট হচ্ছে। তাই আমাদের এসব বেকার তরুণদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, দেশে লক্ষ লক্ষ একর জমি খাস পড়ে রয়েছে। এমন কি চকরিয়াতেও হাজার হাজার একর জমি খাস পড়ে রয়েছে। এসব জমি কৃষকদের মাঝে লীজ দিতে হবে। লবণ চাষীদের অধিকার ফিরিয়ে দিতে হবে। জাতিসংঘে আমরা বলে এসেছি আগামী ৩০ সালের মধ্যে দেশ থেকে দারিদ্র দূর করবো।

বাংলাদেশ ওয়ার্কাস পার্টি কক্সবাজার জেলা শাখার আয়োজনে সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন ওয়ার্কাস পার্টি কক্সবাজার জেলার সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা কমরেড হাজী বশিরুল আলম।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন- বাংলাদেশ ওয়ার্কাস পার্টি কেন্দ্রীয় কমিটির নেতা দীপংকর সাহা দিপু, চট্টগ্রাম জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক শরীফ সোবাহান, কেন্দ্রীয় যুব মৈত্রীর সহ-সভাপতি কাইছার আলম, ফারুক আহমেদ রুবেল, কক্সবাজার জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক মাঈনউদ্দিন হাসান শাহেদ, কক্সবাজার জেলা যুব মৈত্রীর সভাপতি মোহাম্মদ ওসমান গণি প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *