২০১৮ সালের মধ্যে তবলছড়িকে উপজেলা করা হবে: কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা



নিজস্ব প্রতিবেদক, মাটিরাঙ্গা :

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বেই ১৯৭১ সালে স্বাধীনতাকামী বাঙালীরা মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল। বঙ্গবন্ধুর সংগ্রাম ও দূরদর্শী নেতৃত্বেই পৃথিবীর মানচিত্রে সার্বভৌম বাংলাদেশের অভ্যুদয় ঘটে এমন মন্তব্য করে ভারত প্রত্যাগত উপজাতীয় শরনার্থী প্রত্যাবাসন ও পুনর্বাসন এবং আভ্যন্তরীন উদ্বাস্তু নির্দিষ্টকরণ সম্পর্কিত টাস্কফোর্স চেয়ারম্যান কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মৃত্যুঞ্জয়ী এক বীরের নাম। যিনি জীবনের শেষ মুহুর্ত পর্যন্ত ছিলেন দৃঢ়চেতা। বঙ্গবন্ধুর দেখানো পথ ধরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও অধিকার বঞ্চিত মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় কাজ করছেন।

শনিবার (১৬ ডিসেম্বর) বিকালে মাটিরাঙ্গার তবলছড়ি বাজার মাঠে আয়োজিত এক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি আরো বলেন, ২০১৮ সালের মধ্যে তবলছড়িকে উপজেলা করা হবে। তবলছড়ি, তাইন্দং ও বড়নাল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ ও সহযোগী সংগঠন এ সমাবেশের আয়োজন করে। তবলছড়ি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি মো. আবদুল কাদের এ সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন।

পার্বত্য চট্টগ্রামকে নিয়ে যুগের পর যুগ ষড়যন্ত্র হয়েছে উল্লেখ করে টাস্কফোর্স চেয়ারম্যান কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি বলেন, পাহাড়ী-বাঙ্গালী সকল সম্প্রদায়ের সহাবস্থান নিশ্চিত করতে শেখ হাসিনা নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। তিনি বলেন, ঐক্য প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে পাহাড়ের সম্প্রীতি ও উন্নয়ন নিশ্চিত করতে হবে। ঐতিহাসিক শান্তিচুক্তির বিরুদ্ধে লংমার্চ করে বিএনপি পাহাড়ী-বাঙ্গালীর মধ্যে প্রাচীর তৈরীর চেষ্টা করেছে।

খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্ঠা মো. নুরুন্নবী চৌধুরী, মো. সাহাব উদ্দিন, খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা রণবিক্রম ত্রিপুরা, সহ-সভাপতি কল্যানমিত্র বড়ুয়া, বীর কিশোর চাকমা (অটল), মো. মনির খান, পার্বত্য জেলা পরিষদ সদস্য খগেশ্বর ত্রিপুরা, খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক ও জেলা পরিষদ সদস্য নির্মলেন্দু চৌধুরী, পার্বত্য জেলা পরিষদ সদস্য ও জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এ্যাড. আশুতোষ চাকমা, পার্বত্য জেলা পরিষদ সদস্য ও জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. আবদুল জব্বার, খাগড়াছড়ি জেলা মুক্তিযোদ্দা ইউনিটের সাবেক কমান্ডার মো. রইচ উদ্দিন, মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও মাটিরাঙ্গা পৌর মেয়র মো: শামছুল হক এবং কেন্দ্রীয় মহিলা আওয়ামীলীগের সদস্য বাসন্তী চাকমা বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন।

বক্তব্যে টাস্কফোর্স চেয়ারম্যান কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা খাগড়াছড়ি জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক এমপি ওয়াদুদ ভুইয়ার সমালোচনা করে বলেন, বিএনপির শাসনামলে মাটিরাঙ্গায় আওয়ামীলীগের অনেক নেতাকে জীবন দিতে হয়েছে। উন্নয়নের বদলে আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীদের হত্যা করা হয়েছে। বর্তমান সরকারের সময়ে পাহাড়ে উন্নয়নের মিছিল চলছে। যারা উন্নয়নের মিছিলে যোগ দেবে না  তাদেরকে নব্য রাজাকার বলেও মন্তব্য করেন টাস্কফোর্স চেয়ারম্যান কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি।

তবলছড়ি, তাইন্দং ও বড়নাল ইউনিয়নের জনগনের দীর্ঘদিনের দাবীর পরিপ্রেক্ষিতে জনসমাবেশের হাজার হাজার মানুষের মুর্হুমুহু করতালি আর শ্লোগানের মধ্যে আগামী ২০১৮ সালের মধ্যে তবলছড়িকে উপজেলা করার ঘোষণা দেন কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *