সুষ্ঠ সংস্কৃতি চর্চা থেকে দূরে সরে যাওয়ায় সমাজে হানাহানি বাড়ছে: বাংলা একাডেমি মহা-পরিচালক


Picture-15-09-13-02

রাঙামাটি প্রতিনিধি:

দেশের শান্তি ও স্থিতিশীলতা আনয়নে সুষ্ঠ সংস্কৃতি চর্চা বাড়ানোর তাগিদ দিয়েছেন বাংলা একাডেমির মহা-পরিচালক শামসুজ্জামান খান। তিনি বলেন, দেশের লোকজ সাহিত্য ও সংস্কৃতির চর্চা থেকে মানুষ দুরে সরে যাওয়ায় আজ সমাজে সংঘাত হানাহানি বেড়ে চলেছে। তিনি সাংস্কৃতিক চর্চার মাধ্যমে দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বকে শক্তিশালী করতে জাতীয় ঐক্য গড়ে তোলার প্রয়োজনীয়তার উপর জোর দেন।

রবিবার রাঙামাটি শিল্পকলা একাডেমিতে বাংলা একাডেমী আয়োজিত আঞ্চলিক সাহিত্য সম্মেলন উদ্বোধন করতে গিয়ে বাংলা একাডেমীর মহা-পরিচালক শামসুজ্জামান খান একথা বলেন।

বিশিষ্ট কবি ও সাহিত্যিক সৈয়দ শামসুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা, রাঙামাটি অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) ড.মুস্তাফিজুর রহমান, পুলিশ সুপার আমেনা বেগম, ময়মনসিংহ এগ্রিকালচার এন্ড ভেটেনারি সাবেক অধ্যাপক ড. মানিক লাল দেওয়ান, সাহিত্যিক আনোয়ারা সৈয়দ হক প্রমূখ।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে রাঙামাটি জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা বলেন, পার্বত্যাঞ্চলের ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র জাতি সংখ্যার দিক দিয়ে হয়তো ছোট হতে পারে কিন্তু সাহিত্য সংস্কৃতির দিক দিয়ে তারা অনেক বড়, পার্বত্য অঞ্চলে বসবাসরত সকল ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র জাতিদের নিজস্ব সংস্কৃতি রয়েছে এবং সংস্কৃতির সাথে জড়িত রয়েছে সম্প্রীতি। তাই এ সংস্কৃতি ও সম্প্রীতিকে রক্ষা করতে সকলকে এগিয়ে আসতে হবে।

সম্মেলনে বক্তারা পাহাড়ের ক্ষুদ্র জাতিস্বতা সমূহের কৃষ্টি ও সংস্কৃতির বিকাশে আরো বেশি সুযোগ সৃষ্টি করতে বাংলা একাডেমীর প্রতি আহবান জানিয়ে বলেন, পাহাড়ের মানুষের সংস্কৃতির বিকাশে সুযোগ সৃষ্টি করা হলে এই অঞ্চলের সংস্কৃতি সেবীরা যেমন উপকৃত হবে তেমনী সংস্কৃতির সেতু বন্ধন রচিত হবে। সাহিত্য সম্মেলনে তিন পার্বত্য জেলার কবি ও সাহিত্যিকরা অংশ নেয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *