সংস্কৃতি চর্চার জন্য রামু যথেষ্ট উর্বর অঞ্চল: বিদায়ী ইউএনও সেলিনা কাজী


ramu pic (2) 28

নিজস্ব প্রতিবেদক:

‘কক্সবাজার জেলায় রামু এলাকা সংস্কৃতি চর্চার জন্য একটি উর্বর অঞ্চল। এখানকার শিল্পী-সংস্কৃতিকর্মীরা চর্চা করেন, পাওয়ার জন্য নয়। মানবিকতার উৎকর্ষে শিল্পীর চর্চা করেন। সেই চর্চার মাধ্যমে রামুকে আরো ব্যাপকভাবে তুলে ধরতে হবে। রামুতে প্রতিভা আছে, একক সাধনা আছে। সংস্কৃতির উর্বরভূমি রামুকে ব্যাপকতায় নিয়ে যেতে শিল্পী-সংস্কৃতিকর্মীদের সাংগঠনিকতা পোক্ত করতে হবে। রামুর শিল্পীরা কিছুটা অভিমানী। নিজে থেকে কিছুই চান না। নিজেদের অধিকারের জন্য চাইতে হয়। শিল্প-সত্ত্বার জন্য চর্চা করুন, নিজেদের অধিকার প্রতিষ্ঠা করুন। শিল্প-সংস্কৃতি চর্চার মাধ্যমে রামুকে উপস্থাপন করুন।’

 রামু’র শিল্পীদের আয়োজনে অনুষ্ঠিত বিদায় সম্মাননা অনুষ্ঠানে সংবর্ধিত অতিথি রামু উপজেলা নির্বাহী অফিসার সেলিনা কাজী শনিবার রাত সাড়ে ৮টায় রামু খিজারী আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত নিজের বিদায় সম্মাননা অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন। এ সম্মাননা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব ও শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন, কক্সবাজার বেতার সংগীত প্রযোজক বশিরুল ইসলাম।

অনুষ্ঠানের শুরুতে কক্সবাজারের শ্রেষ্ঠ সমাজসেবক সাবেক সাংসদ ও সাবেক রাষ্ট্রদূত অধ্যক্ষ আলহাজ্ব ওসমান সরওয়ার আলম চৌধুরীর ষষ্ঠ মৃত্যু বার্ষির্কী উপলক্ষে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করে মরহুমের প্রতি সম্মান জানান অতিথি, শিল্পী সহ উপস্থিত সূধীজন।

গান, কবিতা ও কথামালায় অনুষ্ঠিত অনাড়ম্বর এ অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন, কন্ঠশিল্পী মানসী বড়ুয়া। বিদায়ী অতিথি রামু উপজেলা নির্বাহী অফিসার সেলিনা কাজীকে শ্রদ্ধা-সম্মান জানিয়ে মানপত্র ‘শোকগাথা’ পাঠ করেন, প্রাবন্ধিক অধ্যাপক নীলোৎপল বড়ুয়া। অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন, শিক্ষাগুরু সাধন কুমার দে, পরিবেশবীদ মুহাম্মদ হাসিবুর রহমান, রামু থানার অফিসার ইনচার্জ প্রভাষ চন্দ্র ধর, আবাসিক প্রকৌশলী অশোক কুমার দাশ, অধ্যাপক রায়হান উদ্দীন, পর্যটন কর্পোরেশনের সাবেক নির্বাহী কর্মকর্তা প্রবীর বড়ুয়া, নাট্যকর্মী মাষ্টার মোহাম্মদ আলম, কাউয়ারখোপ হাকিম রকিমা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কিশোর বড়ুয়া, রামু খিজারী আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক নাজনিন আকতার মেরী, চিত্রশিল্পী তানবীর সরওয়ার রানা প্রমুখ।

এছাড়াও বিদায়ী অতিথির সম্মানে অনুষ্ঠানে গান পরিবেশন করেন, কন্ঠশিল্পী প্রবীর বড়ুয়া, রায়হান উদ্দীন, নাজনিন সোলতানা জোনাকী, পলি বড়ুয়া, রবিউল হাসান রবি, মেহজাবীন আনিকা। কবিতা পাঠ করেন, শিক্ষক চিকু বড়ুয়া।

রামু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিনা কাজী’র বিদায় সম্মাননা অনুষ্ঠানের আয়োজন করে, রামুর শিল্পী, সংস্কৃতিকর্মী ও সংস্কৃতিকামীরা। অনুষ্ঠানে চিত্রশিল্পী তানবীর সরওয়ার রানা’র আঁকা রামু উপজেলার গ্রাম-প্রকৃতি চিত্র বিদায়ী অতিথিকে প্রদান করেন, রামুর শিল্পীরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *