লামায় ৩টি অস্ত্রসহ ২ শীর্ষ পাহাড়ি সন্ত্রাসী আটক


আপডেট

লামা প্রতিনিধি:

বান্দরবানের লামা উপজেলার ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নের বয়ামঝিরি ও গয়ালমারা থেকে ৩টি দেশীয় অস্ত্র, নগদ টাকা ও ৩টি মোবাইলসহ শীর্ষ পাহাড়ি সন্ত্রাসী অনিল কান্তি চাকমা প্রকাশ ডেঙ্গা চাকমাসহ ২ সন্ত্রাসীকে আটক করেছে নিরাপত্তা বাহিনী।

নিরাপত্তাবাহিনী অভিযান চালিয়ে সোমবার(১৯মার্চ) দুপুরে এ সন্ত্রাসীদের আটক করেছে। আটককৃতরা হলো-বান্দরবান সদর উপজেলার বাসিন্দা অনিল কান্তি চাকমা প্রকাশ ডেঙ্গা চাকমা ( ৫৫) এবং আলীকদম উপজেলার বয়ামঝিরির বাসিন্দা সুব্রত চাকমা (৪৫)।

জানা গেছে, রোববার দিবাগত রাত হতে নিরাপত্তা বাহিনী অভিযান পরিচালনা করে। অভিযান শেষে ২টি একনলা দেশীয় বন্দুক, ১টি কাঠের তৈরি দেশীয় বন্দুক ও নগদ ৬৯ হাজার ১৭ টাকা ও ৩টি মোবাইলসহ শীর্ষ সন্ত্রাসী দুইজনকে আটক করা হয়। তাদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হেফাজতে নেয়া হয়েছে।

স্থানীয়রা জানিয়েছে,  আটক ডেঙ্গা চাকমা স্থানীয় পাহাড়ি জেএসএস কমান্ডার কাজল চাকমার সহচর। সে লামা ও আলীকদম থানায় হত্যা অপহরণ ও চাঁদাবাজিসহ নানা অপরাধের মামলার একজন ফেরারী আসামি। দীর্ঘ দিন থেকে খাশিয়া খালী ইউনিয়নের বয়ালমারা এলাকায় পাথর, বালু, ফুলের ঝাড়ু ও তামাক চাষিদের কাছ থেকে চাঁদা আদায় করে আসছিল ওই সন্ত্রাসী। তার অপকর্মের সহযোগী সূব্রত চাকমার বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি অপহরণসহ নানান অভিযোগ রয়েছে বলেও জানান তারা।

ইউপি চেয়ারম্যান জাকির হোসেন মজুমদার জানান, ডেঙ্গা চাকমা একটি হত্যা মামলার ফেরারী আসামি। ডেঙ্গা চাকমার নেতৃত্বে এলাকা জুড়ে বিভিন্ন ধরণের সন্ত্রাসী বাহিনী তৎপরতা চালিয়ে আসছে দীর্ঘদিন ধরে।

লামা থানা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ আনোয়ার হোসেন জানান, অস্ত্রসহ দুই সন্ত্রাসীকে আটক করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *