রোহিঙ্গাদের জন্য এডিবি’র সহায়তা চাইতে প্রকল্প হচ্ছে: অর্থমন্ত্রী


পার্বত্যনিউজ ডেস্ক:

রোহিঙ্গাদের জন্য এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংকের (এডিবি) কাছে সহায়তা চাইতে সরকার প্রকল্প তৈরি করছে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। সোমবার সচিবালয়ে এডিবির দক্ষিণ এশীয় বিভাগের মহাপরিচালক হান কিম এর সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের একথা জানিয়েছেন তিনি। এসময় রোহিঙ্গারা জাতীয় বাজেটে তেমন প্রভাব ফেলছে না বলেও জানান তিনি।

অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে এডিবির দক্ষিণ এশীয় মহাপরিচালকের বৈঠকে বাংলাদেশকে আগামী পাঁচ বছরে আট (৮) বিলিয়ন ঋণ সহায়তা দেওয়ার পাশাপাশি রোহিঙ্গাদের জন্য সহায়তার বিষয়টিও উঠে আসে। এ বিষয়ে বাংলাদেশ চাইলে এডিবি রোহিঙ্গাদের জন্য সহায়তা তহবিল দিতে প্রস্তুত আছে বলে জানান হান কিম। পরে তিনি সাংবাদিকদেরও এ বিষয়ে অবহিত করেন।

এ বিষয়ে অর্থমন্ত্রী আবদুল মুহিতের দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে তিনি বলেন, অবশ্যই আমরা রোহিঙ্গাদের জন্য এডিবি’র কাছে সহায়তা চাইবো। রোহিঙ্গা ইস্যুতে এর আগে আমরা বিশ্ব ব্যাংকের কাছেও সহায়তা চেয়েছি। এজন্য প্রকল্প তৈরি করা হচ্ছে। স্বাস্থ্য, শিক্ষা, বাসস্থান, চিকিৎসাকে অগ্রাধিকার দিয়ে অর্থ মন্ত্রণালয় প্রকল্প তৈরি করছে। তবে আমরা ধীরগতিতে এগুচ্ছি। রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনের বিষয়ে কী অগ্রগতি হয় তা পর্যবেক্ষণ করেই এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

এসময় রোহিঙ্গারা জাতীয় বাজেটে কেমন চাপ ফেলছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, তেমন একটা প্রভাব ফেলছে না। শুরুতে ভেবেছিলাম তারা আমাদের বাজেট তছনছ করে দেবে। কিন্তু, এখন বলা যায় তেমন সমস্যা হচ্ছে না। কারণ, তাদের খাওয়া ও থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছে। এক্ষেত্রে বিদেশি রাষ্ট্র ও সংস্থাগুলো সহায়তা করছে। তাই আমাদের খুব বেশি চাপ পোহাতে হচ্ছে না। তবে সেখানে আমাদের বিভিন্ন মন্ত্রণালয় কাজ করছে। তাদের কিছু চাহিদার বিষয়ে তারা জানাচ্ছে। আমরা সেগুলোর ব্যবস্থা করছি। তবে এর পরিমাণ খুব বেশি নয়।

 

সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *