মহেশখালীতে কুষ্টিয়ার ১নারীর লাশ উদ্ধার: স্বামী পুলিশ হেফাজতে


মহেশখালী প্রতিনিধি:

ককসবাজারের মহেশখালীতে কুষ্টিয়ার এক এক নারীর গলায় ফাঁস লাগানো লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

 শনিবার (১৮অাগস্ট) বিকাল ১টায় এ ঘটনা ঘটে। মহেশখালী পৌরসভার গোরকঘাটা সিকদার পাড়া গ্রামের অাব্দুল হাকিম প্রকাশ ঢাকাইয়্যা হাকিমের ভাড়া বাসায়।

জানা যায়, স্বামী মহেশখালী ডিজিটাল অাইল্যান্ডের সহকারী প্রকৌশলী অাবু রায়হান(২৭) এর সাথে এক বছর পূর্বে বিয়ে হয় কুষ্টিয়া জেলার ভেড়ামারা থানার সাতবাড়িয়া গ্রামের সাবান অালীর মেয়ে অন্তরা বেগম (২০)।

স্বামী অাবু রায়হান জানায়, কুষ্টিয়া নিজের বাড়ীতেও প্রায় সময় স্ত্রীর সাথে ছোট বোনের বিবাহ নিয়ে ঝগড়া বিবাধ ছিল। কয়েক মাস পূর্বে স্বামী স্ত্রী ঢাকায় বসবাস করে অাসছিল। চলতি মাসে স্বামী অাবু রায়হানের চাকরী হয় মহেশখালী ডিজিটাল অাইল্যান্ড এর একটি প্রকল্পের সহকারী প্রকৌশলী হিসাবে। ফলে স্ত্রী অন্তরা বেগম বাবা সাবান অালীর সাথে এক সপ্তাহ পূর্বে মহেশখালীতে এসে গোরকঘাটা হাকিম সওদাগরের বাড়ীতে উঠে। শুক্রবার রাতে কলেজে ভর্তি বিষয় নিয়ে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া বিবাধ হয়। শনিবার স্বামী বাজারে গেলে স্ত্রী রুমে গলায় ফাঁস লাগিয়ে অাত্মহত্যা করে।

শনিবার দুপুর ১টায় স্বামী অাবু রায়হান বাড়ীতে এসে স্ত্রীকে ডাকাডাকি করে দরজা বন্ধ পেয়ে জানালা দিয়ে দেখতে পায় স্ত্রী অন্তরা বেগমের ঝুলন্ত লাশ। এসময় পাশের লোক জনের সহায়তায় দ্রুত মহেশ খালী হাসপাতালে নিয়ে অাসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করে।

হাসপাতাল সুত্রে সংবাদ পেয়ে মহেশখালী থানা পুলিশ নিহত নারীর সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করে মর্গে পাঠানো হয়। স্বামী অাবু রায়হান পুলিশ হেফাজতে রয়েছে।

এ ব্যাপারে,মহেশখালী থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাশ জানায়, গলায় ফাঁস চিহ্নিত একটি মহিলার লাশ উদ্ধার হয়েছে। স্বামী পুলিশ হেফাজতে রয়েছে। তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। অাবু রায়হান ভেড়ামারা থানার একই এলাকার অাজিজুল হকের পুত্র।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *