মহালছড়ি উপজেলার কালাপাহাড় জামে মসজিদ নির্মাণ কাজ বন্ধ থাকায় মুসল্লিরা নামাজ পরে খোলা আকাশের নিচে রাস্তায়


মহালছড়ি প্রতিনিধি:

খাগড়াছড়ি জেলার মহালছড়ি উপজেলার কালাপাহাড় গ্রামের শতভাগ মুসলমান সম্প্রদায়ের জনগণের একমাত্র মসজিদ কালাপাহাড় জামে মসজিদ। শুরুতে গ্রামের গরীব জনসাধারণ নিজেরা নিজেদের সামর্থ অনুযায়ী গ্রামের মধ্যখানে কালাপাহাড় আরএমকে সড়কের পাশে টিনশেডের একটা কাঁচা ঘর করে এলাকার মুসল্লিরা নামাজ আদায়সহ নানা ধর্মীয় কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছিলেন।

সময়ের পরিক্রমায় জনসংখ্যা ও মুসল্লির সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় চাহিদার প্রেক্ষিতে মসজিদটি ভবন নির্মাণ ও সম্প্রসারণের জন্য সদাশয় সরকার পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের মাধ্যমে তিনতলা ভবন বিশিষ্ট মসজিদটির উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণ করেন এবং ঠিকাদার নিয়োগ দেওয়া হয় উন্নয়ন কাজে। শুরুতে ঠিকাদার গত এপ্রিল মাসে পুরানো মসজিদটি ভেঙ্গে ফেলে এলাকার মুসল্লিদের নামাজ পড়ার বিকল্প ব্যবস্তা না করে মসজিদের নির্মাণ কাজে হাত দেন।

এলাকার মুসল্লিরা বিকল্প হিসেবে পাশাপাশি একটি ঝুপরির মত ঘর করে সেখানে বিগত ৭/৮ মাস যাবত নামাজ আদায় করে আসছেন। গত শুক্রবার (১৩ অক্টোবর)সরজমিনে গিয়ে দেখা যায় শতাধিক মুসল্লি রাজপথের উপর জুমার নামাজ আদায় করছেন জীবনের ঝুঁকি নিয়ে। সরজমিনে আরো দেখা যায় মসজিদের গ্রেট বীমগুলি কমপ্লিট করে কয়েকটি পিলার করেই নির্মাণ কাজ বন্ধ রেখেছেন ঠিকাদার।

এলাকাবাসীর অভিযোগ হলো, মসজিদটি এভাবেই পরে রয়েছে ছয় মাস ধরে। মসজিদের অভাবে এলাকার ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের নি নিদারুণ দুভোর্গ পোহাতে হচ্ছে তা স্বচক্ষে না দেখলে কল্পনা করা যায় না। এলাকাবাসীর অভিযোগ নয়, তাদের দাবি হলো সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ আর সময় ক্ষেপন না করে যত তারাতারি সম্ভব মসজিদটি নির্মাণ করে দিলে এলাকাবাসী একটু শান্তিতে নামাজ পড়তে পারবেন আল্লাহর ঘর মসজিদে বসে।

মসজিদটি নির্মাণে সংশ্লিষ্ট সকলের শুভ বুদ্ধির উদয় হোক আল্লাহর দরবারে। এই দোয়াই করেন এলাকার ধর্মপ্রাণ মুসল্লি ও জনসাধারণ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *