বাঁকখালী নদীর দু’পাশে গড়ে তোলা হবে পর্যটন স্পট


unnamed-copy

নিজস্ব প্রতিবেদক:

কক্সবাজার ও রামুর সিংহভাগ মানুষের জীবন-জীবিকার প্রধান উৎসস্থল বাঁকখালী নদীর দু’পাশে পর্যটন স্পট গড়ে তোলা হবে বলে জানিয়েছেন কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান লে. কর্ণেল (অব:) ফোরকান আহমদ এলডিএমসি, পিএসসি। শুক্রবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত তিনি ঐতিহ্যবাহী এ নদীর বিভিন্ন পয়েন্ট পরিদর্শন করেন। প্রথমে তিনি পিএমখালীর রাবার ডেম এলাকা পরিদর্শন করেন। পরে নৌকা যোগে চলে আসেন খুরুশকুল ব্রীজ এলাকায়। এসময় নদীর দু’পাশে অবৈধদখল, নদীর গতিরোধ ও ভাঙ্গন দৃশ্য দেখে তিনি বিস্মিত হন।

পরিদর্শনকালে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, নদীর পানি প্রবাহ আপন ধারায় পরিচালিত হতে না পারলে স্বাভাবিকভাবে নদী ক্ষতিগ্রস্থ হয়। বাঁকখালী নদীর দু’পাশে কিছু মানুষ তাদের জমি রক্ষার্থে যেসব ‘প্রতিবন্ধকতা’ সৃষ্টি করেছে তাতে নদী ভরাট হয়ে গতি পরিবর্তন হচ্ছে। ফলে অপর কূল ভেঙ্গে যাচ্ছে। একারণেই হাজার হাজার জেলে মাছ শিকার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।

নদীর দু’পাশে অবৈধ দখল ও দূষণ রোধ করতে হবে জানিয়ে তিনি বলেন, শীঘ্রই প্রশাসনের উর্ধ্বতন মহলে নদীর ব্যাপারে বৈঠক হবে। নদীর সীমানা নির্ধারণের পাশাপাশি দু’কূলে পর্যটন স্পট গড়ে তোলা হবে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এরকম নদী কেন্দ্রিক গড়ে ওঠা পর্যটন শিল্প দেশের রাজস্ব আদায়ে ব্যাপক ভূমিকা রাখছে।

তিনি নদীর কস্তুরাঘাট, ৬নং ঘাটসহ আরও বিভিন্ন পয়েন্ট ঘুরে দেখেন। পরিদর্শনকালে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ক্যাপ্টেন ওয়ালি উল্লাহ, কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সেকশন অফিসার মো. সেলিম উল্লাহ, আলহাজ্ব জহিরুল হক প্রমূখ।

image_pdfimage_print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *