প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পাচ্ছেন কক্সবাজারের ৩৩ হাজার ৩৩৪ দুঃস্থ পরিবার


মহেশখালী প্রতিনিধি:

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঈদ উপহার পাচ্ছেন কক্সবাজার জেলার ৩৩,৩৩৪ জন দুঃস্থ পরিবার। বাস্তুচ্যুত মিয়ানমারের নাগরিক (রোহিঙ্গা) প্রবেশের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন এমন দুঃস্থ পরিবারই পাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার।

আগামি ১২ জুন জেলার ৮টি উপজেলায় একযোগে বিতরণ করা হবে প্রধানমন্ত্রীর উপহার। জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ কার্যালয় ইতোমধ্যে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার বিতরণের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে।

কক্সবাজার সদর উপজেলার প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা শফিউল আলম সাকিব জানিয়েছেন, বিগত কোন সরকার প্রধান এভাবে ঈদ উপহার দেননি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাই এই কার্যক্রম শুরু করলেন। তিনি এ কার্যক্রম ছাড়াও সাধারণ মানুষের কল্যাণে দেশের তৃণমূল পর্যায়ের অর্থনীতিকে আরও সুদৃঢ় করার জন্য অনেকগুলো প্রকল্প চালু করেছেন। যে প্রকল্প থেকে সুফল পেতে শুরু করেছে সাধারণ মানুষ।

জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, পুরো জেলায় একযোগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঈদ উপহার বিতরণ শুরু হবে। এতে চকরিয়া উপজেলায় ৩৫৮০ জন, কক্সবাজার সদর উপজেলায় ২১৭০ জন, কুতুবদিয়ায় ১৭৯০ জন, মহেশখালীতে ২৮৩০ জন, রামুতে ২৬৩০ জন, টেকনাফে ৬০০০ হাজার জন, উখিয়ায় ১২৫০০ জন ও পেকুয়ায় ১৮৩৪ দুঃস্থ পরিবার প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পাবেন।

ঈদ উপহারের মধ্যে রয়েছে নগদ ২ হাজার টাকা, ১ কেজি চিনি, ১ কেজি সেমাই, ১ লিটার সয়াবিন তেল, ১টি রুহ আফজা, দুধ ১ কেজি ও চাউল ২ কেজি।

এদিকে উখিয়া উপজেলায় সর্বোচ্চ সাড়ে ১২ হাজার মানুষ প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পাচ্ছেন। মিয়ানমার থেকে বাস্তুচ্যুত অন্তত ১১ লাখ রোহিঙ্গা এখন অবস্থান করছে এই উপজেলায়। এতে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে উখিয়া উপজেলার মানুষ।

সূত্র আরও জানায়, সুষ্ঠু বিতরণ নিশ্চিত করতে তালিকা প্রণয়নের ক্ষেত্রে ব্যবহারযোগ্য স্বচ্ছ মাস্টার রোল ও ইউপি চেয়ারম্যান স্বাক্ষরিত সীলসহ টোকেন উপকারভোগীদের মাঝে পূর্বেই পৌঁছানোর নির্দেশনা রয়েছে। প্রত্যেক ইউনিয়ন পরিষদ কেন্দ্র থেকেই বিতরণ করা হবে এই ঈদ সামগ্রী। বিতরণকালে একজন টেগ অফিসার ছাড়াও একজন সিনিয়র অফিসার উপস্থিত থাকবেন।

এ ছাড়াও বিতরণকালে ভিডিও চিত্র ও স্থির চিত্র ধারণ করে হার্ডকপি ও সফট কপি জরুরী ভিত্তিতে দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বরাবরে পৌঁছাতে হবে।

সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নোমান হোসেন প্রিন্স জানিয়েছেন, ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা অনুযায়ী সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের সঠিক তালিকা প্রণয়নের জন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। নির্ধারিত তারিখেই প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার বিতরণ সম্পন্ন হবে।

কুতুবদিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুজন চৌধুরী জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার বিতরণের জন্য ইউপি চেয়ারম্যানদের তালিকা প্রণয়নের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। আমরা চাই প্রধানমন্ত্রীর এই ঈদ উপহার সু-শৃংখলভাবে প্রকৃত দুঃস্থ লোকদের মাঝে পৌঁছে দিতে।

কক্সবাজার জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার প্রতিটি উপজেলায় পৌঁছানোর কাজ শুরু হয়েছে। উপজেলা থেকে পৌঁছানো হবে প্রতিটি ইউনিয়নে। ১২ জুন এই ঈদ উপহার বিতরণ সম্পন্ন হবে। তবে কোন অনিয়ম হলে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *