পেকুয়া বাজারে এক ব্যবসায়ীর উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন


পেকুয়া প্রতিনিধি:

পেকুয়া আলহাজ্ব কবির আহমদ চৌধুরী বাজারের ব্যবসায়ী হারুনুর রশিদের উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

পেকুয়া বাজার বণিক সমিতির নেতৃবৃন্দ ও বাজারের অন্যান্য ব্যবসায়ীদের উদ্যোগে ওই প্রতিবাদ ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

গত ৭ মার্চ রাতে ব্যবসায়ী হারুনুর রশিদকে  পেকুয়া বাজারে দূর্বৃত্তরা কুপিয়ে গুরুতর আহত করার প্রতিবাদে ধারাবাহিক কর্মসূচির অংশ হিসাবে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। পেকুয়া বাজার বণিক সমিতি গত ১০ মার্চ সংবাদ সম্মেলন করে এ কর্মসূচি পালন করার ঘোষণা দিয়েছেন।

রবিবার বেলা ৩টা থেকে ৪টা পর্যন্ত পেকুয়া বাজারস্থ সড়কে সমিতি সকল সদস্য ও ব্যবসায়ীরা মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করেন।

প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখেন, পেকুয়া বাজার বণিক সমিতির সভাপতি আকতার আহমদ, সহ-সভাপতি আজিজূল হক, সাধারণ সম্পাদক মিনহাজ উদ্দিন, ডিরেক্টর মো. রহিম, শাহেদ ইকবাল, মো. শফি, পেকুয়া সমবায় ক্রেডিট ইউনিয়নের ডিরেক্টর ব্যবসায়ী নাজেম উদ্দিন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মঈন উদ্দিনসহ অন্যান্য ব্যবসায়ীবৃন্দ।

এ সময় উপস্থিত নেতৃবৃন্দ বক্তব্যে বলেন, আমরা ব্যবসায়ী বিভিন্ন এলাকার দলমত নির্বিশেষে হাজার হাজার মানুষ বিভিন্ন এলাকা থেকে এসে পেকুয়া বাজারে ব্যবসা করে থাকে। তারা কোটি কোটি টাকার পুঁজি দিয়ে ব্যবসা করছে। আর এ বাজারকে অস্থিতিশীল করতে একশ্রেণীর লোক উঠে পড়ে লেগেছে। প্রকাশ্যে সৎ একজন ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা করার চেষ্টা চালিয়েছে সন্ত্রাসীরা। ফাঁকা গুলিবর্ষণ করে বাজার এলাকায় আতঙ্কক সৃষ্টি করেছে। আমরা মনে করি সন্ত্রাসীদের কোন দল থাকতে পারেনা। দলের নাম ভাঙ্গিয়ে খারাপ কাজ করবে বাজার রক্ষার স্বার্থে ব্যবসায়ীরা ঘরে বসে থাকবেনা।

এর আগে সন্ত্রাসীরা বাজারের ব্যবসায়ীদের উপর হামলার ঘটনায় হাতে পায়ে ধরে পার পেয়ে গিয়েছিল। এবার তা হবেনা। ব্যবসায়ী ও ব্যবসায়ী সমিতির নেতৃবৃন্দরা ঐক্যবদ্ধ। বাজারের ব্যবসায়ী যেই কারোর উপর হামলা মেনে নেওয়া হবেনা।

প্রশাসনের প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করে ব্যবসায়ীরা তাদের বক্তব্যে বলেন, পেকুয়া বাজারের একজন সৎ ও পুরাতন ব্যবসায়ীর উপর হামলার ঘটনায় এখন পর্যন্ত মামলা হয়নি। মামলা রেকর্ড করুন আর ঘটনায় সংশ্লিষ্ট সকলকে আইনের আওতায় আনুন। এ ধরণের ঘটনার জন্য মামলা রেকর্ড না করায় ক্ষোপ প্রকাশ করেন ব্যবসায়ীরা।

নিউজটি পেকুয়া বিভাগে প্রকাশ করা হয়েছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *