পেকুয়ায় ভাবীকে দেবরের নির্যাতন


পেকুয়া প্রতিনিধি:

কক্সবাজারের পেকুয়ার টৈইটং এ ভাবীকে নির্যাতন চালিয়েছে দেবর। এ সময় দেবরের অতর্কিত হামলায় ভাবী আহত হয়েছে।

শুক্রবার (২ মার্চ) বেলা দেড়টায় টইটং ইউনিয়নের নাপিতখালী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। আহতের নাম ফরিদা বেগম (৪৫)। সে ওই এলাকার সৌদি প্রবাসী আলী আহমদের স্ত্রী।

স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বসত বাড়ির জায়গা নিয়ে দীর্ঘ দিন ধরে তাদের মধ্যে বিরোধ চলে আসছে। ঘটনার দিন ওই এলাকার মৃত আবুল কাশেমের পুত্রবধু আহত ফরিদা বেগমের দেবর মো. মোজাম্মেল হক দীর্ঘ দিন ধরে একটি পরিত্যাক্ত জায়গা নিজের দখলে নিতে চেষ্টা চালাচ্ছে এবং ঘটনার দিন জায়গাটি দখল করতে চাইলে ফরিদা বেগম তাতে বাঁধা দেয় এরই জের ধরে উভয়ের মধ্যে সামান্য কথাকাটি হয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে মো. মোজাম্মেল হক ২/৩ জন সন্ত্রাসী নিয়ে তার ভাবী ফরিদাকে বেদড়ক মারধর করে গুরুতর আহত করে। আহত ফরিদার চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এসে ঘটনাস্থল থেকে তাকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে পেকুয়া সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ ব্যাপারে আহতের মেয়ে আছমাউল হোছনা মুন্নি জানান, মায়ের আহতের খবর পেয়ে আমি শ্বশুর বাড়ি থেকে দেখতে এসেছি। শুনেছি আমার চাচার সাথে মায়ের সাথে জগড়া হয়েছে। আমার মা কিছু বুঝে উঠতে না উঠতেই আমার মাকে অশালীন গালিগালাজ করতে করতে এক পর্যায়ে মাকে বেদড়ক পিটিয়ে আহত করে।

এ ব্যাপারে পেকুয়া থানা অফিসার ইনচার্জ জহিরুল ইসলাম খান জানান, এ বিষয়ে কেউ আমাকে অবগত করেনি। লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেলে দোষিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *