পুলিশ টেকনাফের দুই ইয়াবা কারবারীর লাশ উদ্ধার করেছে নেত্রকোনা থেকে


নিজস্ব প্রতিনিধি, কক্সবাজার:
পুলিশ টেকনাফের হ্নীলা ইউনিয়নের দুই যুবকের গুলিবিদ্ধ লাশ নেত্রকোনা জেলা থেকে  উদ্ধার করেছে বলে জানা গেছে।

তারা হলো- হ্নীলা  মন্ডল পাড়ার মৌলভী দীল মোহাম্মদের বড় ছেলে ইসমাঈল এবং ওসমান।  পরিবারের লোকজন ছবি দেখে তাদের পরিচয় নিশ্চিত করেছে। তারা দুইজনই ইয়াবা কারবারে জড়িত বলে স্থানীয়রা নিশ্চিত করেছেন।

নিহতদের পরিবারের লোকজন দাবি করেছে, তারা ঢাকায় চাকরি করছে বলে পরিবারকে জানিয়েছিলো। তারা যে ইয়াবা ব্যবসা করতো এটা পরিবার কোনোভাবেই জানতো না।

টেকনাফের স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নিহত ইসমাঈল এবং ওসমান দীর্ঘদিন ঢাকায় রয়েছে। টেকনাফের সিন্ডিকেটের বিভিন্ন মাধ্যমে পাঠানো ইয়াবা তারা ঢাকা ও আশেপাশের এলাকায় বিক্রি করতো।

নেত্রকোনা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ বোরহান উদ্দিন জানান, নেত্রকোনা সদর উপজেলার মদনপুর ইউনিয়নের মনাং ইট খলার পাশের বাগানে গভীর রাতে মাদক বেচা কেনা হতে যাচ্ছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মডেল থানার পুলিশ রাত দুটার দিকে সেখানে পৌঁছলে মাদক ব্যবসায়ীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে। এ সময় আত্ম-রক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি ছুঁড়ে। এ সময় বন্দুকযুদ্ধে দুই মাদক ব্যবসায়ী নিহত এবং তিন পুলিশ আহত হন।

পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দু’টি পাইপ গান, ৭শ ৫ গ্রাম হেরোইন, ৩ হাজার ৫ পিস ইয়াবা উদ্ধার করে। পরে নিহতদের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

কক্সবাজার জেলা পুলিশের মুখপাত্র অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আফরুজুল হক টুটুল শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টায় জানান, নেত্রকোনা থেকে এখন পর্যন্ত কোনো কাগপত্র বা ছবি তাদের কাছে আসেনি। আর নিহতের ব্যাপারেও কোনোভাবে অবগত হয়নি তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *