পিবিসিপি ও নাগরিক পরিষদের মানববন্ধনে ছাত্রলীগের বাঁধা; স্পিকার, ভূমিমন্ত্রী ও সংসদীয় কমিটির কাছে স্মারকলিপি পেশ


নিজস্ব প্রতিবেদক, পার্বত্য নিউজ:
বহুল বিতর্কিত পার্বত্য ভূমি কমিশন আইন ২০০১ ও এর সংশোধনী ২০১৩ সংসদে পাশ না করার দাবীতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে আহুত বাঙালী ছাত্র পরিষদ ও পার্বত্য নাগরিক পরিষদেও মানববন্ধনে বাধা দিয়েছে ছাত্রলীগ।

বাঁধা পেয়ে তারা সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মানববন্ধন করে। তবে পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচী অনুযায়ী জাতীয় সংসদেও স্পিকার, ভূমিমন্ত্রী ওভূমি মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও সদস্যদেও কাছে স্মারকলিপি প্রদান করেছে।

আজ সকাল ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে পার্বত্য নাগরিক পরিষদ ও পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের উদ্যোগে মানববন্ধন কর্মসূচী পালনের লক্ষ্যে নেতাকর্মীরা একত্রিত হলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগ নেতা মেহেদী হাসানের নেতৃত্বে মানববন্ধনে বাঁধা প্রদান করা হয়।

এ সময় ছাত্রলীগ নেতারা, ‘পার্বত্য চট্টগ্রামের বাঙ্গালীরা গেল কেন? পার্বত্য চট্টগ্রাম উপজাতিদের জন্য, পাহাড় রক্ষায় দায়িত্ব আপনাদের নয়’- জাতীয় প্রশ্ন তুলে দিয়ে কর্মসূচী বন্ধ করে দেয় ও অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করে নেতাকর্মীদের বের করে দেয়। এরপর নেতৃবৃন্দ সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে একত্রিত হয়ে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করেন।

 মানববন্ধন শেষে পার্বত্য নাগরিক পরিষদের চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার আলকাছ আল মামুন ভূঁইয়ার নেতৃত্বে ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি ইসমাইল নবী শাওন, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক তৌহিদুল ইসলাম ও ঢাকা মহানগর আহ্বায়ক মনির হোসেনসহ একটি প্রতিনিধি দল জাতীয় সংসদের মাননীয় স্পীকার মহোদয়াকে স্মারকলিপি প্রধান করেন।

এসময় মাননীয় স্পীকার কিছুক্ষণ নেতৃবৃন্দের বক্তব্য মনোযোগ সহকারে শুনেন এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস প্রদান করেন।
এরপর নেতারা ভূমি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী, ভূমি মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও সদস্যদের, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ, বিরোধী দলীয় ভারপ্রাপ্ত চীফ হুইপ শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানি এবং বিরোধী দলীয় অন্যান্য সংসদ সদস্যদের কাছেও স্মারকলিপি প্রদান করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *