নাফনদী থেকে ২ জেলেকে অপহরণ করেছে বিজিপি


 

নিজস্ব প্রতিবেদক, কক্সবাজার:

কক্সবাজারের টেকনাফের নাফনদী থেকে বাংলাদেশী ২ জেলেকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি) সদস্যরা।

মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে নাফনদীর এক নম্বর স্লুইচ গেইট এলাকা থেকে নৌকা সহ এদের ধরে নিয়ে যাওয়া হয়। ধরে নিয়ে যাওয়া জেলেরা হলেন, টেকনাফ পৌরসভার জালিয়াপাড়ার মোহাম্মদ কাশিমের পুত্র নুর কামাল (৩০) ও মোহাম্মদ হোসেনের পুত্র আবদুল করিম (৩২)।

নুর কামালের পিতা মোহাম্মদ কাশিম ও স্ত্রী নুর খাতুন জানিয়েছেন, অন্যান্য দিনের মতো নাফনদীতে মাছ ধরতে গিয়ে আর ফেরত না আসায় তারা খোঁজ খবর নেয়া শুরু করেন। অন্যান্য জেলেরা জানিয়েছে, ২ জনকে ধরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

নুর কামালের পিতা মোহাম্মদ কাশিম জানান, নাফনদীতে মাছ ধরতে হলে প্রতি মাসে ৩ হাজার টাকা করে চাঁদা দিয়ে মিয়ানমারের বাহিনীর কাছ থেকে বিশেষ একটি টোকেন নিতে হয়। টেকনাফ পৌর এলাকার আবদুল হামিদের ভাড়া বাড়িতে থাকা মমতাজ মিয়া নামের এক দালাল এ টোকেন দেন। তার পুত্র টোকেন নেয়ার পরও ধরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। এ পর্যন্ত কোন খোঁজ খবর পাওয়া যাচ্ছে না। বিষয়টি ওই দালাল এবং বিজিবিকে জানানো হয়েছে।

মমতাজ মিয়া নামের ওই দালাল টোকেন দেয়ার সত্যতা স্বীকার করে জানান, জেলেদের মঙ্গলের জন্য মাধ্যম হয়ে এ কাজটি করেন। কিন্তু তারপরও কেন ধরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বিষয়টি যোগাযোগ করা হচ্ছে।

বিজিবির টেকনাফস্থ ২ নম্বর ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্ণেল আরিফুল ইসলাম জানান, জেলে ধরে নিয়ে যাওয়া বিষয়টি কেউ তাকে অবহিত করেননি। তিনি খোঁজ খবর নিয়ে ব্যবস্থা নিচ্ছেন বলেও জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *