দেশ ছেড়ে যাচ্ছেন এমপি বদি!


বিশেষ প্রতিনিধ, কক্সবাজার:

বন্দুকযুদ্ধে একের পর এক মাদক ব্যবসায়ীরা নিহত হওয়ার প্রেক্ষিতে এমপি বদি দেশ ছেড়ে পালিয়ে যাচ্ছেন বলে গুজব রটেছে কক্সবাজারের সর্বত্র।

শনিবার (২৬ মে) রাতে টেকনাফ যুবলীগের সাবেক আহ্বায়ক ও টেকনাফ পৌর কাউন্সিলর একরাম (কমিশনার) এবং এর আগের দিন এমপি বদির বেয়াই আক্তার মেম্বার বন্দুকযুদ্ধে নিহত হওয়ার ঘটনায় এখন ইয়াবা সম্রাজ্যে তোলপাড় চলছে। এরই মাঝে গেল রাত থেকে ইয়াবা গডফাদার বলে আলোচিত সমালোচিত আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য আব্দুর রহমান বদি দেশ ছেড়ে পালিয়ে যাচ্ছেন বলেও গুজব শোনা যাচ্ছে।

ইতোমধ্যেই ইয়াবা গডফাদাররা ভারত-মিয়ানমারে পালিয়ে গেলেও বদির পরিবারের সদস্যরা ঢাকা- চট্টগ্রামে গা ঢাকা দিয়ে আত্মগোপনে চলে গেছে। তবে এমপি বদির ঘনিষ্টজনেরা বলছেন, তিনি পালিয়ে যাচ্ছেন না। এমপি আব্দুর রহমান বদি ওমরা পালনের জন্য সৌদি আরব যাচ্ছেন।

এদিকে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এর উপর এমপি বদি অার ভরসা পাচ্ছেন না।

কারণ, “আওয়ামী লীগের কক্সবাজারের সংসদ সদস্য বদির বিরুদ্ধে যদি মাদকের অভিযোগ প্রমাণ পাওয়া যায়, তাহলে বদির বেয়াই যেমন ছাড় পায়নি তেমনি আওয়ামী লীগ, বিএনপি কেউ ছাড় পাবে না” ওবায়দুল কাদেরের এমন মন্তব্যে এমপি বদি আর ভরসা পাচ্ছেন না।

এমপি বদি ‘ক্রসফায়ারে ভীত নয়’ বলে মন্তব্য করলেও মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের-এর মন্তব্যে তিনি আর ভরসা পাচ্ছেন না বলেই মনে করছেন অনেকে।

ঈদকে সামনে রেখে শনিবার দুপুরে আশুলিয়ার বাইপাইল এলাকায় বাইপাইল-আব্দুল্লাহপুর ও নবীনগর-চন্দ্রা মহাসড়কের সার্বিক পরিস্থিতি পরিদর্শন করতে এসে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে ওবায়দুল কাদের এ মন্তব্য করেন। মন্ত্রী এসময় আরও বলেন, সারাদেশে সরকার মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেছে। তাই মাদকের বিরুদ্ধে সর্বাত্মক অভিযান শুরু করেছে র‌্যাব এবং পুলিশ।

তিনি বলেন, এই অভিযানে রাজনৈতিক একটি মহল খুশি না হতেও পারে কিন্তু দেশের মানুষ অনেক খুশি। মাদক বিরোধী অভিযানে আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য বদির ব্যাপারে মন্ত্রী বলেন, বদির বেয়াই ছাড় পায়নি, মাদক ব্যবসার সাথে আওয়ামী লীগ-বিএনপিসহ যেই অভিযুক্ত, কেউই ছাড় পাবে না। অভিযোগ প্রমাণিত হলে বদিও ছাড় পাবে না।

মন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের এই মন্তব্যেই এখন বদি সম্রাজ্যে তোলপাড় চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *