তুমুল নাটকীয়তায় দ্বিতীয় রাউন্ডে স্পেন-পর্তুগাল


পার্বত্যনিউজ ডেস্ক:

তুমুল নাটক জমিয়ে রাশিয়া বিশ্বকাপের দ্বিতীয় রাউন্ডে জায়গা করে নিয়েছে স্পেন ও পর্তুগাল। গুরুত্বপূর্ণ শেষ ম্যাচে স্পেনের প্রতিপক্ষ ছিল মরক্কো। নাটকীয় এই ম্যাচটি শেষ হয় ২-২ গোলের ড্র দিয়ে। পর্তুগাল-ইরান ম্যাচটিও ছিল নাটকীয়তায় ভরপুর। এই ম্যাচটিও শেষপর্যন্ত ১-১ গোলে ড্র হয়।

ড্রয়ের পর স্পেন-পর্তুগালের পয়েন্ট দাঁড়ায় সমান পাঁচ। এতে কপাল পোড়ে ইরানের। চার পয়েন্ট হওয়ায় ‘বি’ গ্রুপের তৃতীয় স্থানে থেকে বিশ্বকাপ শেষ করতে হয় তাদের। আর আগেই বিদায় নিশ্চিত হয়ে যাওয়া মরক্কো তিন ম্যাচ থেকে সংগ্রহ করেছে মাত্র এক পয়েন্ট। অন্যদিকে, পয়েন্ট সমান হলেও গোল ব্যবধানে এগিয়ে থাকায় গ্রুপ সেরা হয়েছে স্পেন।

কালিনিনগ্রাদে ম্যাচের শুরু থেকেই দুর্দান্ত খেলে স্পেন-মরক্কো। তবে স্প্যানিশদের হতাশায় ডুবিয়ে ম্যাচের ১৪ মিনিটেই এগিয়ে যায় মরক্কো। দারুণ এক গোল করে মরক্কোকে এগিয়ে দেন খালিদ বৌতাইব। কিন্তু এগিয়ে যাওয়ার এই আনন্দ খুব বেশিক্ষণ ধরে রাখতে পারেনি তারা।

কারণ ৫ মিনিট পরেই সমতায় ফেরে স্পেন। দারুণ এক গোল করে দলকে সমতায় ফেরান ইস্কো। ‍কিছুদিন আগেই স্প্যানিশ জায়ান্ট বার্সেলোনাকে বিদায় বলে দেওয়া আন্দ্রেস ইনিয়েস্তার দারুণ এক তৈরি করা বল থেকে গোল করে লা রোজাদের ম্যাচে ফেরান ইস্কো। এরপর প্রথমার্ধের বাকিটা সময়ে বেশ আক্রমণ চালিয়ে যায় স্পেন। কিন্তু প্রতিপক্ষের জাল খুঁজে পাননি কস্তা-সিলভারা। ১-১ গোলে সমতায় নিয়ে বিরতিতে যায় স্পেন-মরক্কো।

সমানে সমান লড়াই চলে বিরতির পরও। ৮১ মিনিটে গোল করে মরক্কোকে আবারও এগিয়ে দেন এন নেসিরি। লড়াই জমে ওঠে আরও। ঠিক ১০ মিনিট পর ৯১ মিনিটে ইয়াগো আসাপসা গোল করে রক্ষা করেন স্পেনকে। শেষ পর্যন্ত ২-২ গোলে ড্র করে দ্বিতীয় রাউন্ডের টিকিট কাটে স্পেন।

অন্যদিকে মার্দোভিয়া এরিনাতে ইরানের মুখোমুখি হয় পর্তুগাল। পর্তুগালকে হারালে বিশ্বকাপের দ্বিতীয় রাউন্ডের টিকিট নিশ্চিত হত ইরানের। আর ড্র করলেই চলত রোনালদো-পেপেদের। এমন সমীকরণের ম্যাচে দুই দলই খেলতে থাকে নিজেদের সেরাটা দিয়ে।

প্রথমার্ধের ৪৫ মিনিটে রিকার্ডো কুয়ারেসমার গোলে এগিয়ে যায় পর্তুগাল। এই গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় ফার্নান্দো সান্তোসের দল।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই গোল ব্যবধান দ্বিগুণ করার সুযোগ পায় পর্তুগাল। কিন্তু দুর্ভাগ্য পর্তুগালের। পেনাল্টি থেকে গোল করতে ব্যর্থ হন দলের সেরা তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। রাশিয়া বিশ্বকাপে লিওনেল মেসির পর পেনাল্টি থেকে গোল করতে ব্যর্থ হওয়ার তালিকায় জায়গা হলো সিআরসেভেনেরও।

সবাই হয়তো ধরে নিয়েছিল ১-০ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়তে যাচ্ছে পর্তুগাল। কিন্তু ৯৩ মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোল করে ইরানকে সমতায় ফেরান আনসারিফার্ড। কিন্তু তাতেও বিশ্বকাপের দ্বিতীয় রাউন্ডে যাওয়া হয়নি ইরানের। তিন ম্যাচ ১ জয় আর দুটি ড্র করে ৫ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় রাউন্ডে জায়গা করে নেন পেপে-রোনালদোরাই। সূত্র-প্রিয়.কম।

নিউজটি খেলা বিভাগে প্রকাশ করা হয়েছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *