ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ১১ ছিনতাইকারীসহ আটক ১৪


কক্সবাজার প্রতিনিধি:

ডাকাতির প্রস্তুতিরকালে ১১জন ছিনতাকারীসহ ১৪জনকে আটক করেছে কক্সবাজার সদর মডেল থানা পুলিশ। ২৫ ডিসেম্বর দিবাগত রাতে অভিযান চালিয়ে সৈকতের কবিতা চত্ত্বরের পূর্ব পাশে ঝাউবাগান থেকে তাদের আটক করা হয়। কক্সবাজার সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রনজিত বড়ুয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, তার নেতৃত্বে ইন্সপেক্টর (তদন্ত) কামরুল আজম, ইন্সপেক্টর মাইন উদ্দিন (অপারেশন) এসআই মো. খালেদ, এসআই দীপক কুমার সিংহ, এএসআই রাজীব বৈরাগী, এএসআই ফরহাদ হোসেন ও সঙ্গীয় অফিসার ফোর্সসহ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কক্সবাজার পৌরসভার কবিতা চত্ত্বরের পূর্ব পাশে ঝাউবাগানে ডাকাতি প্রস্তুতি কালে ২৬ ডিসেম্বর ভোর সাড়ে ৩টায় ১৪জনকে আটক করা হয়। এদের মধ্যে ১১জন পেশাদার ছিনতাইকারী। এসময় তাদের কাছ থেকে আট চুরি, ৮টি মুখোশ ও পাঁচটি লোহার রড উদ্ধার করা হয়।

আটকরা হলো, ঝিলংজা ইউনিয়নের পশ্চিম লারপাড়া এলাকার মীর কাশেমের ছেলে মো. রুবেল (২০), পশ্চিম গোমাতলী এলাকার মৃত শহর মল্লুক এর ছেলে মো. কাছিম (৩৫), বাদশা ঘোনা এলাকার আইয়ুব আলীর ছেলে মো. শাহিন (২০), বৈল্যাপাড়া এলাকার মৃত আবু বক্কর এর ছেলে আবু তাহের (২৮), নুর পাড়া এন্ডারসন রোড এলাকার মৃত আমির হোসেন এর ছেলে রাফসান হোসেন প্রঃ মিন্টু (৩১), মোহাজের পাড়া এলাকার নুর মোহাম্মদ এর ছেলে তুষার আহম্মদ মাওন (২৩) এবং আব্দুল কাদের এর ছেলে ফজলে করিম (২৭), দক্ষিণ বাহারছড়া এলাকার মৃত ফরিদ এর ছেলে নুরুল আবছার (২০), ঝিলংজা পশ্চিম গোমাতলীর নুরুল আজিম প্রঃ হাসান আলীর ছেলে মোবারক আলী (২০), দক্ষিণ রুমালিয়ারছড়া বাচা মিয়ার ঘোনা এলাকার নুরুল আলমের ছেলে রায়হান (২০), এবং মৃত আলী আকবর এর ছেলে আলাউদ্দিন (২০)। এছাড়া কুখ্যাত মোটর সাইকেল চোর সিন্ডিকেটের সদস্য নবাব শরীফ ও বাদশাকে পুলিশ আটক করে। পৃথক অভিযানে সাজা প্রাপ্ত নুরুল আমীনকে খুরুশকুল মেহেদী পাড়া থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে কক্সবাজার সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রনজিত বড়ুয়া আরো বলেন, আটককৃতদের বিরুদ্ধে ডাকাতি, ছিনতাই, দস্যুতার অভিযোগে একাধিক মামলা রয়েছে। অন্যদিকে আলাদাভাবে ডাকাতি প্রস্তুতি এবং অস্ত্র মামলা রুজু করে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ওসি বলেন, ‘কক্সবাজার শহর ও শহরতলীর পর্যটকসহ সকল নাগরিকের নিরাপত্তা বিধানে পুলিশের বিভিন্ন টিমের প্রতিনিয়ত অভিযান অব্যাহত আছে।’

image_pdfimage_print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *