টেকনাফে আনসার ক্যাম্পের অস্ত্র লুটের দুই হোতা গ্রেফতার


গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদক:

টেকনাফে আনসার ক্যাম্পের অস্ত্র লুটের ঘটনার অন্যতম হোতা খাইরুল আমিন (বড়) ও মাস্টার আবুল কালাম আজাদকে অস্ত্রসহ গ্রেফতার করেছে কক্সবাজার র‌্যাব সদস্যরা। পরে তাদের নিয়ে পাহাড়ী এলাকায় অভিযান চালিয়ে ক্যাম্প থেকে লুট হওয়া বেশকিছু অস্ত্র ও বুলেট উদ্ধার করা হয়।

সোমবার রাত ১০ টা থেকে মঙ্গলবার ভোর পর্যন্ত টেকনাফ কুতুপালং ও কক্সবাজার সংলগ্ন নাইক্ষ্যংছড়ি পাহাড়ী এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক ও অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

র‌্যাব-৭ এর কক্সবাজার ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার লে. কর্ণেল আশেকুর রহমান জানান, গোপন সংবাদের অভিযান চালিয়ে রাতে কুতুপালং এলাকা থেকে একটি পিস্তল ও একটি ওয়ান সুটার গানসহ খাইরুল আমিন (বড়) ও মাস্টার আবুল কালাম আজাদকে গ্রেফতার করা হয়। পরে লুট হওয়া অস্ত্র উদ্ধারে কক্সবাজার সংলগ্ন নাইক্ষ্যছড়ি’র বিভিন্ন পাহাড়ে সারা রাত অভিযান চালিয়ে আনসার ক্যাম্প থেকে লুট হওয়া ১টি এসএমজি, ৬টি ম্যাগজিন, ১টি চাইনিজ রাইফেল ও ১টি এমটু চাইনিজ রাইফেল উদ্ধার করা হয়। অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

২০১৬ সালের ১৩ মে  টেকনাফ উপজেলার নয়াপাড়ায় রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরে আনসার বাহিনীর শালবন ব্যারাকে গভীর রাতে দুর্বৃত্তরা হামলা চালায়। এতে দুর্বৃত্তের গুলিতে নিহত হয় আনসার কমান্ডার আলী হোসেন। দুর্বৃত্তরা ব্যারাক থেকে ১১টি অস্ত্র ও বিপুল সংখ্যক গুলি লুট করে নিয়ে যায়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *