টানা বৃষ্টিতে চরম দুর্ভোগে রোহিঙ্গারা


নিজস্ব প্রতিনিধি,কক্সবাজার:
সেনা নির্যাতনে মিয়ানমারের আরাকান থেকে পালিয়ে উখিয়া-টেকনাফে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গারা চরম ঝুঁকিতে রয়েছে বৃষ্টি বাদলে। ৭ লাখ নতুন ও ৪ লাখ পুরাতনসহ ১১ লাখ রোহিঙ্গার মধ্যে প্রায় ২ লাখ রোহিঙ্গা প্রাকৃতিক চরম দুর্যোগ ঝুঁকিতে রয়েছে বলে জানা গেছে।
ঝুঁকিতে বসবাসরত এসব রোহিঙ্গা পরিবারদের মধ্যে থেকে ৩৫ হাজার রোহিঙ্গাকে ঝুঁকিমুক্ত করা হলেও বাকীরা এখনো রয়েছে মারাত্মক ঝুঁকিতে। এতে করে এসব রোহিঙ্গারা ঝুঁকি নিয়ে রাত যাপন করছেন বলে জানা গেছে।
গত ৫ দিনের ভারী বর্ষনে পানির সাথে একাকার হয়ে পড়েছে রোহিঙ্গা ক্যাম্প। ক্যাম্পের বিভিন্ন স্থান দিয়ে পানি প্রবাহিত হওয়ায় চরম দুর্ভোগে পড়েছে বেশির ভাগ রোহিঙ্গা।
তবে উখিয়ার ইউএনও বলছেন, এ পর্যন্ত রোহিঙ্গা ক্যাম্পে তেমন কোন দুর্ঘটনা ঘটেনি। তিনি বলেন,  যে কোন ধরনের দুর্যোগ মোকাবেলায় প্রশাসনের পাশাপাশি বিভিন্ন এনজিও সংস্থাকে প্রস্তুত রাখা হয়েছে।
গত বছরের ২৫ আগস্টের পর উখিয়া-টেকনাফে আশ্রয় নেয়া ৭ লাখ নতুন রোহিঙ্গাকে মানবিক কারণে প্রায় সাড়ে ৫ হাজার একর বনভুমিতে আশ্রয় দেয় সরকার।
পরে প্রশাসন বর্ষা মৌসুমে প্রাকৃতিক দুর্যোগ কবলিত স্থান থেকে দুই লাখ রোহিঙ্গাকে নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নেওয়ার উদ্যোগ গ্রহণ করে ৩৫ হাজার রোহিঙ্গাকে নিরাপদ স্থানে আশ্রয় নিশ্চিত করে। বাকি রোহিঙ্গারা এখনো ঝুঁকিতে রয়েছে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *