জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বিতরণ ২৪ জুলাই


পার্বত্যনিউজ ডেস্ক:

আজীবন সম্মাননা ও চলচ্চিত্র জগতের সেরাদের নিয়ে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ২০১৫। আগামী ২৪ জুলাই বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিকেল ৪টায় বিজয়ীদের হাতে এই পুরস্কার তুলে দেবেন।

অনুষ্ঠানটির সমন্বয়ের দায়িত্বে থাকবে তথ্য মন্ত্রণালয়। গণমাধ্যমকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজার।

২০১৫ সালের পুরস্কারের জন্য সুপারিশ করা ব্যক্তি/চলচ্চিত্রের নাম দেয়া হলো-

 

আজীবন সম্মাননা: যুগ্মভাবে শাবানা ও ফেরদৌসী রহমান।

শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র – যুগ্মভাবে ‘বাপজানের বায়োস্কোপ’ ও ‘অনিল বাগচীর একদিন’।

শ্রেষ্ঠ প্রামাণ্য চলচ্চিত্র – একাত্তরের গণহত্যা ও বধ্যভূমি।

শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র পরিচালক – যুগ্মভাবে মো. রিয়াজুল মওলা রিজু (বাপজানের বায়োস্কোপ) ও মোরশেদুল ইসলাম (অনিল বাগচীর একদিন)।

শ্রেষ্ঠ অভিনেতা প্রধান চরিত্রে- যুগ্মভাবে শাকিব খান (আরো ভালোবাসব তোমায়) ও মাহফুজ আহমেদ (জিরো ডিগ্রি)।

শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী প্রধান চরিত্রে – জয়া আহসান (জিরো ডিগ্রি) ।

শ্রেষ্ঠ অভিনেতা পার্শ্ব চরিত্রে – গাজী রাকায়েত (অনিল বাগচীর একদিন)।

শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী পার্শ্ব চরিত্রে – তমা মির্জা (নদীজন)।

শ্রেষ্ঠ অভিনেতা/অভিনেত্রী খল চরিত্রে – ইরেশ যাকের (ছুঁয়ে দিল মন)।

শ্রেষ্ঠ শিশুশিল্পী – যারা যারিব (প্রার্থনা)।

শিশুশিল্পী শাখায় বিশেষ পুরস্কার – প্রমিয়া রহমান (প্রার্থনা)।

শ্রেষ্ঠ সংগীত পরিচালক -সানী জুবায়ের (অনিল বাগচীর একদিন)।

শ্রেষ্ঠ গায়ক : যুগ্মভাবে সুবীর নন্দী (তোমারে ছাড়িতে বন্ধু, চলচ্চিত্র : মহুয়া সুন্দরী) ও এসআই টুটুল (উথাল পাতাল জোয়ার, চলচ্চিত্র : বাপজানের বায়োস্কোপ)।

শ্রেষ্ঠ গায়িকা – প্রিয়াংকা গোপ (আমার সুখ সে তো, চলচ্চিত্র : অনিল বাগচীর একদিন)।

শ্রেষ্ঠ গীতিকার – আমিরুল ইসলাম (উথাল পাতাল জোয়ার, চলচ্চিত্র : বাপজানের বায়োস্কোপ)।

শ্রেষ্ঠ সুরকার – এস আই টুটুল (উথাল পাতাল জোয়ার, চলচ্চিত্র : বাপজানের বায়োস্কোপ)।

শ্রেষ্ঠ কাহিনীকার – মাসুম রেজা (বাপজানের বায়োস্কোপ)।

শ্রেষ্ঠ চিত্রনাট্যকার – যুগ্মভাবে মাসুম রেজা (বাপজানের বায়োস্কোপ) ও মো. রিয়াজুল মওলা রিজু (বাপজানের বায়োস্কোপ)।

শ্রেষ্ঠ সংলাপ রচয়িতা – হুমায়ূন আহমেদ (অনিল বাগচীর একদিন)।

শ্রেষ্ঠ সম্পাদক – মেহেদী রনি (বাপজানের বায়োস্কোপ)।

শ্রেষ্ঠ শিল্প নির্দেশক -সামুরাই মারুফ (জিরো ডিগ্রি)।

শ্রেষ্ঠ চিত্রগ্রাহক – মাহফুজুর রহমান খান (পদ্ম পাতার জল)।

শ্রেষ্ঠ শব্দগ্রাহক – রতন কুমার পাল (জিরো ডিগ্রি)।

শ্রেষ্ঠ পোশাক ও সাজসজ্জা – মুসকান সুমাইকা (পদ্ম পাতার জল) এবং শ্রেষ্ঠ মেকআপম্যান – শফিক (জালালের গল্প)।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *