চকরিয়া-পেকুয়ায় নৌকার বিজয় ছাড়া বিকল্প ভাবনার অবকাশ নেই



চকরিয়া প্রতিনিধি:
কক্সবাজারের চকরিয়ায় বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ চকরিয়া পৌরসভার দুই নম্বর ওয়ার্ড শাখার উদ্যোগে ৮ নভেম্বর বিকালে স্থানীয় জনতা মার্কেট চত্বরে সম্মেলন উপলক্ষে বিশাল সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি তাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ জাফর আলম।

সম্মেলনে প্রধান বক্তা ছিলেন চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও কক্সবাজার জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান জাহেদুল ইসলাম লিটু। বিশেষ বক্তা ছিলেন পৌরসভা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আতিক উদ্দিন চৌধুরী। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য আমিনুর রশিদ দুলাল, চকরিয়া পৌরসভার মেয়র ও উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক আলমগীর চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আলহাজ ফজলুল করিম সাঈদী।

বক্তব্য রাখেন চকরিয়া পৌরসভার প্যানেল মেয়র বশিরুল আইয়ুব, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাংবাদিক মিজাবাউল হক, চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মোছলেহ উদ্দিন মানিক, আবু তালেব, যুগ্ম সম্পাদক ফেরদৌস ওয়াহিদ, সেলিম সিকদার লিটন, যুগ্ম সম্পাদক ও পৌর কাউন্সিলর রেজাউল করিম, সাংগঠনিক সম্পাদক নজরুল ইসলাম রাসেল, মুজিবুর রহমান লিটন, ফরিদুল ইসলাম, প্রচার সম্পাদক আরিফ মাইন উদ্দিন রাসেল, সাংস্কৃতিক সম্পাদক ইমাম হোসেন, শিক্ষা ও মানব কল্যান সম্পাদক জমির উদ্দিন, তথ্য ও গবেষনা সম্পাদক শুধাংসু বিমল সুশীল।

সমাবেশে প্রধান অতিথি জাফর আলম বলেন, অতীতের যে কোন সময়ের চেয়ে বর্তমানে চকরিয়া-পেকুয়া উপজেলা, চকরিয়া পৌরসভা ও মাতামুহুরী সাংগঠনিক উপজেলা আওয়ামীলীগ সাংগঠনিকভাবে অনেক শক্তিশালী। চকরিয়া পৌর বাসটার্মিনাল মাঠে সেতুমন্ত্রীর জনসভার উপস্থিতি তাই প্রমাণ করে। সংগঠনের এই ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে হবে। তৃনমুলে দলের জন্য নেতাকর্মীদেরকে আরো বেশি কাজ করতে হবে। বর্তমান সরকারের সফল উদ্যোগ ও জনগনের কল্যানে নেয়া শেখ হাসিনা সরকারের সফল কর্মসুচিগুলো জনগনের কাছে তুলে ধরতে হবে। যাতে আমরা আগামী নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের বিজয় নিশ্চিত করে চকরিয়া-পেকুয়ার আসনটি জননেত্রী শেখ হাসিনাকে উপহার দিতে পারি।

উপজেলা চেয়ারম্যান বলেন, আওয়ামীলীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা চকরিয়া-পেকুয়ার জনগনকে ভালবেসে বিগত সময়ে তিনবার নৌকা প্রতীকে দলীয় মনোনয়ন দেন। কিন্তু আমরা জনবান্ধব মাঝির অভাবে বারবারই নৌকা থেকে সিটকে পড়েছি। আগামীতে চকরিয়া-পেকুয়ার জনগণ অতীতের সেই ভুল আর করতে চায় না। আওয়ামীলীগ নেতাকর্মীও পরাজয়ের সেই গ্লানি থেকে ফিরে বিজয়ের হাসি দেখতে অপেক্ষায় আছে। আগামী নির্বাচনে চকরিয়া-পেকুয়া আসনে নৌকার বিজয় ছাড়া আওয়ামীলীগের নেতাকর্মী ও সর্বস্থরের জনগন বিকল্প কিছুই ভাবছে না। সেই ভাবেই আমাদেরকে বিজয়ের অভিষ্ট লক্ষ্য অর্জনে এগিয়ে যেতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *