চকরিয়ায় ১০ হাজার ইয়াবাসহ আটক-২


চকরিয়া প্রতিনিধি:

চট্রগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে চকরিয়ায় চিরিংগা হাইওয়ে পুলিশ অভিযান চালিয়ে যাত্রীবাহী নোহা গাড়িতে তল্লাশী করে ১০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করেছে। পুলিশ এসময় পাচার কাজে জড়িত থাকায় গাড়ির চালক ও হেলপারকে আটক করেছে।

শুক্রবার(১১মে) দুপুর ১টার দিকে কক্সবাজার মহাসড়কের উপজেলার চকরিয়া বানিয়ারছড়াস্থ আমতলি নামক এলাকায় পুলিশ গাড়ি তল্লাশী করে এসব ইয়াবা উদ্ধার করে। ধৃত ইয়াবা পাচারকারী হলেন, কক্সবাজার সদর উপজেলার রুমালিয়াছড়া এলাকার মো. কলিম উল্লাহর পুত্র নোহা গাড়ির চালক নাছির উদ্দিন(৩৮) ও চট্রগ্রামের চন্দনাইশ উপজেলার পূর্ব দোহাজারী এলাকার নবাব আলীর পুত্র গাড়ির হেলপার আবুল কালাম(৩৫)। এ ঘটনায় পুলিশ সংশ্লিষ্ট মাদক আইনে থানায় মামলা দায়ের করেছে।

বানিয়ারছড়াস্থ চিরিংগা হাইওয়ে পুলিশ সূত্রে জানাগেছে, চট্টগ্রাম কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়াস্থ চিরিংগা হাইওয়ে পুলিশ বানিয়ারছড়া স্টেশন সংলগ্ন আমতলি নামক এলাকায় শুক্রবার দুপুরের দিকে সড়কে নিয়মিত টহলের অংশ বিশেষ দায়িত্ব পালন করেছিল হাইওয়ে পুলিশের একটি টিম। এসময় নোহা গাড়ি যোগে ইয়াবা পাচারের গোপন সংবাদ পেয়ে কক্সবাজার থেকে ছেড়ে আসা চট্রগ্রামগামী যাত্রীবাহী নোহা (ঢাকা মেট্রো-চ ১৫-৫৪৫১)গাড়িটি উল্লেখিত স্থানে পৌঁছলে সিগন্যাল দিয়ে থামানো হয়।

পরে হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির এসআই মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে সঙ্গীয় পুলিশ ওই যাত্রীবাহী গাড়িটি তল্লাশী চালিয়ে তৈলের টাঙ্কির উপরে কসট্যাপ দিয়ে মুড়ানো ১০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে বলে পুলিশ জানান।

এ ব্যাপারে চিরিংগা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ সার্জেন্ট নুরে আলমের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, চকরিয়াস্থ কক্সবাজার মহাসড়কে হাইওয়ে পুলিশের অভিযানে ১০ হাজার ইয়াবাসহ নোহা গাড়ির চালক ও হেলপারকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছে। ধৃত ইয়াবা পাচারকারীকে থানায় সোপর্দ করা হয়েছে। এনিয়ে হাইওয়ে পুলিশ সংশ্লিষ্ট আইনে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে বলেও তিনি জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *