চকরিয়ায় এক প্রবাসীর বাড়ি ডাকাতি, নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট


chakaria-pic-5-12-16

চকরিয়া প্রতিনিধি :
চকরিয়ায় এক প্রবাসীর বাড়িতে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার সহ ৯লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে।

ডাকাতদল বাড়িতে ঢোকার জন্য দরজা-জানালা ও দেয়ালও ভাংচুর করে। বাধা দিতে গিয়ে ডাকাতদের প্রহারে প্রবাসীর স্ত্রী, দুই ছেলে-মেয়ে সহ ৪ জন আহত হয়েছে। উপজেলার কৈয়ারবিল ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড পূর্ববানিয়ারকুম গ্রামে ঘটে এঘটনা। এনিয়ে ভুক্তভোগী পরিবারের পক্ষে ৫ডিসেম্বর রাতে ৬ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ৭/৮ জন দেখিয়ে প্রবাসী মোক্তার হোসেনের স্ত্রী হাজী আছমাউল হোসনা (৩০) বাদী হয়ে থানায় এজাহার দায়ের করেছেন।

থানায় দেয়া লিখিত এজাহারে স্ত্রী হাজী আছমাউল হোসনা জানায়, তার স্বামী মোক্তার হোসেন দীর্ঘদিন ধরে সৌদিআরবে থেকে জীবিকা নির্বাহ করেন। সম্প্রতি জমি ক্রয়ের জন্য ২লাখ ৭০হাজার টাকা পাঠায়। খবর পেয়ে গত ৪ ডিসেম্বর রাত ১২টার দিকে ডাকাতদল প্রবাসীর বাড়িতে হানা দেয়। প্রথমে ডাকাতরা বন্দুকের বাট দিয়ে বাড়ি মেরে দরজা খোলার জন্য বলে। দরজা না খোলায় দেয়াল ও জানাল ভেঙ্গে ভেতরে প্রবেশ করে।

ডাকাতদের কথা অনুযায়ী আলমারীর চাবি না দেওয়ায় মারধর করে প্রবাসীর স্ত্রী আছমাউল হোসনা, ছেলে মো. মাহের, মেয়ে ইসরাত জন্নাত ও ছোট ভাই মনির উদ্দিনকে। এক পর্যায়ে গুলি করে হত্যার ভয় দেখিয়ে চাবি নিয়ে আলমারী খোলে বিদেশ থেকে পাঠানো নগদ ২লাখ ৭০হাজার টাকা এবং ৪লাখ ৮০হাজার টাকা মূল্যের ১২ভরি স্বর্ণালংকার, মোবাইল সেট, টর্চ লাইট লুট ও বাড়ি ভাংচুরে ১লাখ ২০হাজার টাকা সহ ৯লক্ষাধিক টাকার লুট করে।

বাদী জানিয়েছেন, ডাকাতরা পালিয়ে যাওয়ার সময় টর্চ লাইটের আলোতে কয়েকজনকে চিনতে পেরেছেন। ফলে মামলার আর্জিতে আসামী করা হয়েছে মো. সিমু (২৬) পিতা মনজুর আলম, নজরুল ইসলাম (৩৮) পিতা অজ্ঞাত, মো. সালাহউদ্দিন প্র: হাসু (৩০) পিতা আজিরীন, মো: হিমু (২৬) পিতা মনজুর আলম সর্বসাং ছিলকঘাট লক্ষ্যারচর এবং মো. ইউসুফ (২৭) ও মো. ইউনুছ (২৯) পিতা আবদুল জলিল সাং পূর্ববানিয়ারকুম কৈয়ারবিল চকরিয়া। ভুক্তভোগী পরিবার প্রশাসনের কাছে অভিযুক্ত আসামীদের গ্রেফতার ও লুন্ঠিত মালামাল উদ্ধারে হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

image_pdfimage_print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *