গুণীজনদের পদচারণায় মুখরিত পার্বত্যনিউজ অফিস


পার্বত্যনিউজ ফেসবুক পেইজের ১ লাখ+ লাইক পূর্তি উপলক্ষ্যে অনুষ্ঠান

পার্বত্যনিউজ রিপোর্ট:

পার্বত্য চট্টগ্রাম নিয়ে দেশের প্রথম জাতীয় গণমাধ্যম পার্বত্যনিউজ-এর ফেসবুক ফ্যান পেইজ (https://www.facebook.com/parbattanews/) এক লাখ প্লাস লাইক অর্জন উদযাপন করা হয়েছে। ২৭ সেপ্টেম্বর বুধবার সন্ধ্যায় রাজধানী ঢাকার ৩২ পুরানা পল্টনের পার্বত্যনিউজ অফিসে জাতীয় পর্যায়ের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গ, পার্বত্য চট্টগ্রামের বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দসহ পার্বত্যনিউজের অনেক পাঠক ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের উপস্থিতিতে আনন্দঘন পরিবেশে কেক কেটে এ উদযাপন সম্পন্ন হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম বীর প্রতীক, সাবেক রাষ্ট্রদূত মেজর জেনারেল (অব.) অনুপ কুমার চাকমা, নিরাপত্তা বিশ্লেষক মেজর জেনারেল (অব.) আবদুর রশীদ, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি ও প্রখ্যাত কবি আবদুল হাই শিকদার, বিশিষ্ট সাংবাদিক ও কার্টুনিস্ট ফরিদী নুমান, পার্বত্য নাগরিক পরিষদের চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার আলকাছ আল মামুন ভূঁইয়া,

সমঅধিকারের সমন্বয়ক ও মুক্তিযোদ্ধা মনিরুজ্জামান মনির, জাহাঙ্গীর কামাল, নাগরিক পরিষদ নেতা শেখ আহমেদ রাজু, দৈনিক ইনকিলাবের সাব এডিটর নুরুল ইসলাম, সিইচইটি অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট ফোরামের তাজুল ইসলাম নাজিমসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ। পার্বত্যনিউজের সম্পাদক মেহেদী হাসান পলাশের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত ঘরোয়া আলোচনা অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিতি ছিলেন, পার্বত্যনিউজের নির্বাহী সম্পাদক সৈয়দ ইবনে রহমত, স্টাফ রিপোর্টার নাইম ইসলাম, মনিরা পারভীন সাথী, সাজেক প্রতিনিধি জুয়েল আহমেদ প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে অতিথিবৃন্দ বলেন, এখন ডিজিটাল যুগ চলছে। তাই যখন ঘটনা মানুষ তখনই সংবাদটি পেতে চায়। এ ক্ষেত্রে অনলাইনপোর্টালগুলো তাদের সংবাদ চাহিদা পূরণের প্রথম টার্গেট। আর যেসব অনলাইন তাৎক্ষণিক এবং বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন করে সেসব অনলাইনের প্রতিই পাঠকদের মনোযোগ বেশি থাকে।

পার্বত্য চট্টগ্রাম সম্পর্কিত সর্বশেষ তথ্য-উপাত্ত সমৃদ্ধ বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনের কারণেই পার্বত্যনিউজের প্রতি পাঠকদের আগ্রহ বেশি। সে কারণেই অনলাইনটির সংবাদ তাৎক্ষণিক নিজেদের ওয়ালে পেতে এর ফ্যান পেইজে লাইক করছেন পাঠকরা। পাঠকদের এ আস্থা ও বিশ্বাস ধরে রাখতে সংবাদ পরিবেশনে পার্বত্যনিউজ তাদের বস্তুনিষ্ঠতা বজায় রেখে সামনে এগিয়ে যাবে বলেও অতিথিবৃন্দ আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *