খাগড়াছড়ি-রাঙ্গামাটি জেলায় দিনব্যাপী সড়ক ও নৌপথ অবরোধ সফলভাবে পালিত: এইচডব্লিউএফ


প্রেসবিজ্ঞপ্তি:

রাঙামাটির কুদুকছড়ি আবাসিক এলাকা থেকে সন্ত্রাসী কর্তৃক অপহৃত হিল উইমেন্স ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক মন্টি চাকমা ও জেলা সাধারণ সম্পাদক দয়াসোনা চাকমাকে উদ্ধারসহ বিভিন্ন দাবিতে বুধবার (২১মার্চ) খাগড়াছড়ি ও রাঙামাটি জেলায় তিন সংগঠনের ডাকা সড়ক ও নৌপথ অবরোধ সফলভাবে পালিত হয়েছে।

বুধবার (২১মার্চ) গনমাধ্যমে পাঠান এক বিজ্ঞপ্তিতে হিল উইমেন্স ফেডারেশন এ দাবি জানায়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, খাগড়াছড়িতে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়াসহ বিচ্ছিন্ন কিছু ঘটনা ঘটলেও রাঙামাটিতে স্বতঃস্ফুর্ত ও শান্তিপূর্ণভাবে অবরোধ কর্মসূচি পালিত হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তি আরও বলা হয়, অবরোধের সমর্থনে সকাল থেকে পিকেটাররা দুই জেলার বিভিন্ন স্থানে অবস্থান নেয় এবং টায়ার জালিয়ে ও গাছের গুড়ি ফেলে রাস্তা অবরোধ করে। পিকেটাররা খাগড়াছড়ি শহরের খাগড়াছড়ি-চট্টগ্রাম সড়কের ফায়ার সার্ভিস এলাকা এবং স্বনির্ভরে খাগাড়ছড়ি-পানছড়ি সড়কে রাস্তায় টায়ার জ্বালিয়ে অবরোধ করে।

অবরোধ চলাকালে সকাল সাড়ে ৮টার দিকে খাগড়াছড়ির পানছড়ি কলেজ গেইট এলাকায় পিকেটাররা রাস্তায় টায়ার জ্বালাতে চাইলে পুলিশ বাধা দেয়। এ সময় পুলিশের সাথে পিকেটারদের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। পুলিশ পিকেটারদের লক্ষ্য করে বেশ কয়েক রাউন্ড টিয়ার শেল নিক্ষেপ করে। এতে দুই পিকেটার আহত হয়।

এছাড়া সকাল ৯টার দিকে জেলার গুইমারায় পিকেটাররা পিকেটিং করার সময় পুলিশ বাধা দিলে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ সময় পুলিশ পিকেটারদের লক্ষ্য করে রাবার বুলেট নিক্ষেপ করলে একজন পিকেটার আহত হয়। এছাড়াও দুই জেলায় বিভিন্ন স্থানে পিকেটাররা অবস্থান করে অবরোধ কর্মসূচি পালন করে।

তপন জ্যোতি চাকমা ওরফে বর্মা ও তার সহযোগীদের গ্রেফতার এবং সেনা-মদদপুষ্ট সন্ত্রাসী কর্তৃক অপহৃত হিল উইমেন্স ফেডারেশ’র দুই নেত্রী মন্টি চাকমা ও দয়াসোনা চাকমাকে উদ্ধারের দাবিতে তিন সংগঠন এই অবরোধ কর্মসূচি পালন করে।

নিউজটি সংগঠন বিভাগে প্রকাশ করা হয়েছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *