parbattanews bangladesh

মিঠুন চাকমার হত্যাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে ৭ দিনের কর্মসূচি ঘোষণা

নিজস্ব প্রতিবেদক, খাগড়াছড়ি:

রাষ্ট্রীয় মদদে ও পরিকল্পনায় মিঠুন চাকমাকে হত্যার অভিযোগ এনে হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ, স্বরনসভা ও প্রদীপ প্রজ্জ্বলনসহ  ৭ দিনের কর্মসূচির ঘোষণা করেছে ইউপিডিএফ।

সোমবার(৮ জানুয়ারি) সকালে খাগড়াছড়ি জেলা শহরের স্বনির্ভরের দলীয় কার্যালয়ে আয়োজিত সাংবাদিক সম্মেলনে এ কর্মসূচি ঘোষণা করেন সংগঠনটির নেতৃবৃন্দ। সাংবাদিক সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট’র (ইউপিডিএফ) কেন্দ্রীয় নেতা নতুন কুমার চাকমা।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, ইউপিডিএফ’র জেলা সংগঠক মাইকেল চাকমা, গণতান্ত্রিক যুবফোরামের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক জিকো ত্রিপুরা, হিল উইমেন্স ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সভানেত্রী নিরূপা চাকমা ও পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি বিনয়ন চাকমা।

সাংবাদিক সম্মেলনে অভিযোগ করা হয়, হত্যাকাণ্ডের চার দিন পার হলেও প্রশাসন ইউপিডিএফ’র কেন্দ্রীয় নেতা মিঠুন চাকমার হত্যাকারীদের গ্রেফতার করতে পারেনি। মিঠুন চাকমার হত্যাকারীদের রক্ষা করতে পরিবারকে মামলা করতে না দিয়ে পুলিশ পরিকল্পিতভাবে বাদী হয়ে মামলা করেছে এমন অভিযোগ করে সাংবাদিক সম্মেলনে বলা হয়, এদেশের শাসকগোষ্ঠী পাহাড়ি জনগণকে নিশ্চিহ্ন করে দেয়ার লক্ষ্যে নানা ষড়যন্ত্র অব্যাহত রেখেছে। রাজনৈতিক নেতা-কর্মীদের হত্যা, নির্যাতনের মাধমে সরকার পার্বত্য চট্টগ্রামকে মেধাশূণ্য করার পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করছে।

প্রসঙ্গত, গত ৩ জানুয়ারি দুপুরে খাগড়াছড়ি শহরের স্লুইস গেইট এলাকায় সন্ত্রাসীদের গুলিতে  পাহাড়ি আঞ্চলিক সংগঠন ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট’র  (ইউপিডিএফ) কেন্দ্রীয় নেতা মিঠুন চাকমা নিহত হয় ইউপিডিএফ এ হত্যাকাণ্ডের জন্য ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিককে দায়ী করে আসছে। তবে ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিক এ হত্যাকাণ্ডে তাদের সংশ্লিষ্টতা অস্বীকার করে বলেছেন, এটি প্রসীতের ইউপিডিএফ’র আভ্যন্তরীন কোন্দলের কারণে হয়েছে। এদিকে ঘটনার চার দিন পর  শনিবার রাতে এসআই একে এম মিজানুর রহমান বাদী হয়ে  ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট’র (ইউপিডিএফ) কেন্দ্রীয় নেতা মিঠুন চাকমার হত্যাকাণ্ডে ৭/৮ অজ্ঞাত ব্যক্তিকে আসামি করে মামলা হয়েছে। খাগড়াছড়ি সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তারেক মোহাম্মদ আব্দুল হান্নান জানান, পরিবারের কেউ মামলা না করায় ন্যায় বিচারের  স্বার্থে পুলিশ মামলাটি করেছেন।

মিঠুন চাকমার হত্যাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে ৬ ও ৭ জানুয়ারি পর পর দু’দিন ইউপিডিএফ’র  সড়ক অবরোধ পালনকালে খাগড়াছড়িতে ব্যাপক গাড়ি  ভাংচুর, অগ্নিসংযোগ, পুলিশের সাথে সংঘর্ষ এবং আধা সামরিক বাহিনীর বিজিবি’র গাড়ি বহরে হামলা ও ভাংচুরের ঘটনা ঘটে।

উল্লেখ, প্রতিষ্ঠার দীর্ঘ ১৯ বছর পর গেল বছরের ১৫ নভেম্বর পার্বত্য চট্টগ্রামের প্রভাবশালী পাহাড়ি আঞ্চলিক সংগঠন ইউপিডিএফ ভেঙ্গে ইউপিডিএফ গণতান্ত্রিক নামে আরো একটি সংগঠনের আত্মপ্রকাশ ঘটে। বিভক্তির পর সংগঠনটির কোন নেতাকর্মী প্রথম হত্যাকাণ্ডের শিকার হলেন।