কুতুবদিয়ায় মাঠে ছিলনা বিএনপি-জামায়াত



কুতুবদিয়া প্রতিনিধি:

বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার দুর্নীতি মামলার রায়কে কেন্দ্র করে কুতুবদিয়ায় ৮ ফেব্রুয়ারি (বৃহস্পতিবার) সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের উদ্যোগে দফায় দফায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

তবে বিএনপি-জামায়াত জোটের কোন মিছিল বা নেতা-কর্মীকে মাঠে দেখা যায়নি। রায়কে কেন্দ্র করে নাশকতা বা বিশৃঙ্খলার আশঙ্কায় পুলিশ ছিল বেশ তৎপর। উপজেলা সদর ও ধূরুংবাজারসহ গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে কয়েকভাগে বিভক্ত হয়ে ভ্রাম্যমান টহল ছিল চোখে পড়ার মতো।

সকাল ১১টার দিকে সদরে উপজেলা আ‘লীগের উদ্যোগে মিছিল উপজেলা চত্বর থেকে শুরু হয়ে সদরে প্রদক্ষিণ করে পুনঃরায় উপজেলা চত্বরে এসে শেষ হয়। সেখানে মিছিলোত্তর আলোচনা সভা উপজেলা আ‘লীগ সভাপতি আওরঙ্গজেব মাতবরের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক বীরমুক্তিযোদ্ধা নুরুচছাফা‘র সঞ্চালনায় অন্যান্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন জেলা আ‘লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও বড়ঘোপ ইউপি চেয়ারম্যান এডভোকেট ফরিদুল ইসলাম চৌধুরী, জেলা আ‘লীগ সদস্য শফিউল আলম কুতুবী, উপজেলা আ‘লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি মৌলভী মোহাম্মদ তাহের, সহ-সভাপতি যথাক্রমে আবু ইউছুপ মাতবর, মাহবুবুল আলম এমইউপি,যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাজী মো. তাহের, আসাদ উল্লাহ চৌধুরী, নজরুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক শেখ শহিদুল ইসলাম লালা, নাজিম উদ্দিন লালা, প্রচার সম্পাদক মো. শাহজাহান সিকদার, শ্রম বিষয়ক সম্পাদক মিজবাহ উদ্দিন ইকু প্রমুখ। এ সময় দলীয় অসংখ্য নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

অপর দিকে উত্তর জোনে ধূরুং বাজারে একই সময়ে দক্ষিণ ধূরুং,উত্তরধূরুং, লেমশীখালী খালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠন পৃথকভাবে নাশকতা বিরোধী মিছিল বের করে বিভিন্ন শ্লোগান দেয়। অবস্থান নেয় বিভিন্ন মোড়ে মোড়ে।

এ ছাড়াও উপজেলা যুবলীগ, ছাত্রলীগ, শ্রমিকলীগ, বাস্তুহারালীগের উদ্যোগে পৃথক পৃথক মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

থানার অফিসার ইন-চার্জ (ওসি) মোহাম্মদ দিদারুল ফেরদাউস বলেন, খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দুনীতি মামলার রায়কে কেন্দ্র করে উপজেলায় নাশকতা প্রতিরোধে পুলিশ ছিল সতর্ক অবস্থানে। মোবাইল টিম ছাড়াও ধুরুংবাজারসহ গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে পুলিশের নজরদারি ছিল কড়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *