কুতুবদিয়ার জলদস্যু তারেক বন্দুকযুদ্ধে নিহত


কুতুবদিয়া প্রতিনিধি:

কুতুবদিয়ার জলদস্যু তারেক র‌্যাবের সাথে বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছে।

বুধবার(৫ ডিসেম্বর) ভোর রাতে পেকুয়ার মগনামা এলাকায় কক্সবাজার র‌্যাব-৭ এর একটি টিমের সাথে বন্দুকযুদ্ধের ঘটনাটি ঘটেছে।

র‌্যাব সূত্র জানায়, কুতুবদিয়ার শীর্ষ জলদস্যু সরদার দিদার বাহিনীর সেকেন্ড ইন কমান্ড তারেক(৩০) সহ কয়েকজন জলদস্যু বুধবার ভোররাতে পেকুয়া মগনামায় ডাকাতির প্রস্তুতি নেয়ার খবর পেয়ে র‌্যাবের একটি টিম সেখানে গেলে জলদস্যুরা টের পেয়ে গুলিবর্ষণ করতে থাকে। এ সময় র‌্যাবও পাল্টা গুলি ছুঁড়লে বাকিরা পালিয়ে গেলেও তারেককে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। হাসপাতালে নেয়া হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশী পিস্তল, ২টি ওয়ানগান শ্যুটার, ২৩ রাউন্ড গুলি, ৪টি খালি খোসা উদ্ধার করা হয়। বিষয়টি পেকুয়া থানার ওসি জাকের হোছাইন ভুঁইয়া নিশ্চিত করেন।

এদিকে কুতুবদিয়া থানার ওসি মোহাম্মদ দিদারুল ফেরদাউস জানান, বন্দুকযুদ্ধে নিহত তারেকের বিরুদ্ধে কুতুবদিয়া থানায় হত্যা, ধর্ষণ, ডাকাতি, চাঁদাবাজি সহ ১৩টি মামলা রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, তারেক কিছুদিন আগেও পুলিশের হাতে অস্ত্রসহ আটক হয়েছিল। পরে জামিনে এসে সম্প্রতি শীর্ষ ডাকাত সর্দার দিদার বন্দুকযুদ্ধে নিহত হবার পর বেপরোয়া হয়ে ওঠে। সাগরে প্রতিনিয়ত দস্যুতা শুরু করেছিল। নিহত তারেক উত্তর ধুরুং সতরুদ্দীন গ্রামের আ. শুক্কুরের পুত্র।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *