ইউপিডিএফের হুমকিতে রাঙামাটিতে ঘরছাড়া ৫৬ পরিবার


রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি:

জেলার বাঘাইছড়ি উপজেলায় আঞ্চলিক দল ইউপিডিএফের হুমকিতে উপজেলার বঙ্গলতলী, সাজেক, রূপকারী, বালুখালী, ডাংগাছড়া, হাগলাছড়া, করেঙ্গাতলী ও বি-ব্লক এলাকার প্রায় ৫৬টি পরিবার ঘরছাড়া হয়ে উপজেলার সদরে বাবু পাড়া কমিউনিটি সেন্টারে আশ্রয় নিয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছে। স্থানীয় থানা ও সূত্রগুলো এ ঘটনা নিশ্চিত করেছে।

আশ্রয় কেন্দ্রে আশ্রিতদের চোখে মুখে এখন হতাশার ছাপ। কেউ মুখ খুলতে রাজি হচ্ছে না। কার বিরুদ্ধে অভিযোগ করবে তা তারা খুঁজে পাচ্ছে না। ঘরছাড়া লোকজন বলছে, ইউপিডিএফ এর ভয়ে ঘর বাড়ি ছেড়ে গৃহপালিত গরু-ছাগল এবং নিজেদের সোনার সংসার ফেলে অসহায়ের মতো জীবন যাপন করছেন বলে অভিযোগ করে আশ্রিতরা।

আশ্রয় কেন্দ্রে বঙ্গলতলী এলাকার বাসিন্দা জনৈক সোনাবী চাকমা বলেন, পার্বত্য এলাকার আঞ্চলিক দলগুলোর অন্তঃকোন্দলের কারণে বেশ কিছু দিন ধরেই উত্তপ্ত এ অঞ্চল। দেড় বছরের শিশু বিদ্যা সাগর চাকমাকে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হয়েছে। তাই শিশুকে নিয়ে অসহায়ের মত জীবনযাপন করছেন।

তিনি আরও জানান, তার স্বামী বান্টর চাকমা পেশায় একজন জুমচাষি। তিনি জেএসএস (এম এ লারমা) দলটি সমর্থন করার কারণে তাকে ইউপিডিএফ’র লোকেরা মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছে। এমনকি গ্রামে বসবাসরত সকল মানুষকে তারা হুমকি দিয়েছে বলে তিনি জানান।

আশ্রয় কেন্দ্রে আশ্রিত পলাশি চাকমা জানান, তার স্বামী স্থানীয় সংগঠন জেএসএস (এম এ লারমা) সমর্থন করাই ইউপিডিএফ’র (প্রসিত) নেতাকর্মীরা মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে যাচ্ছে বেশ কয়েকদিন ধরে। তাই আশ্রয় কেন্দ্রে আশ্রয় নিয়েছি। তিনি আরও জানান, ঘরবাড়ি ছেড়ে এখানে থাকতে অনেক কষ্ট হচ্ছে। সরকার যাতে তাদেরকে জানমালের নিরাপত্তা দেয়।

এ বিষয়ে ইউপিডিএফ (প্রসিত) সংগঠক মাইকেল চাকমার সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি এ বিষয়ে কোন মন্তব্য করতে রাজি হয়নি।

এই বিষয়ে বাঘাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) মো. আমির হোসেন  এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আঞ্চলিক দল গুলোর আধিপত্য বিস্তারের কারণে প্রাণের ভয়ে বাবু পাড়া কমিউনিটি সেন্টারে বেশ কয়েকটি উপজাতীয় পরিবার আশ্রয় নিয়েছে। কিন্তু এ ঘটনায় কেউ এখনও কোন মামলা দায়ের করেনি বলেও তিনি জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *