আঞ্চলিক দলের অবৈধ অস্ত্রের ভয়ে পাহাড়ের মানুষ জিম্মি: দীপংকর তালুকদার


rangamati-al-pic1-copy

নিজস্ব প্রতিবেদক:

অবৈধ অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে আঞ্চলিক দলের সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা পাহাড়ের মানুষকে জিম্মি করে রেখেছে বলে অভিযোগ করেছেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের সাবেক প্রতিমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য দীপংকর তালুকদার।

বৃহস্পতিবার বেলা ১২টার দিকে রাঙামাটি জেলার লংগদু উপজেলায় পরিষদ মাঠে আওয়ামী লীগের উদ্যোগে তার গণ সংবর্ধনা সমাবেশে দীপংকর তালুকদার এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, তাই মুখ খুলতে চাই না কেউ। সময়ের সাথে বেড়ে চলেছে পাহাড়ি আঞ্চলিক দলগুলোর দৌরত্ম। এখন তাদের নিজস্ব নিয়মে চলছে পাহাড়। নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছে এ অঞ্চলের মানুষ। তাই তারা ইচ্ছা করলেও কোন রাজনৈতিক দলের সাথে সম্পৃক্ত হতে পারেনা, শুধু মাত্র পাহাড়ি আঞ্চলিক দল ছাড়া। তিনি প্রশাসন ও সরকারের  কাছে এসব অবৈধ অস্ত্রধারীদের  চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনার জোর দাবি জানান।

রাঙামাটি উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল বারেক সরকারের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন তিন পার্বত্য জেলা সংরক্ষিত মহিলা আসনে সংসদ সদস্য ফিরোজা বেগম চিনু, রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি হাজি মো. কামাল উদ্দিন, জেলা কৃষক লীগ সভাপতি জাহিদ আক্তার প্রমূখ।

সাবকে এ প্রতিমন্ত্রী দীপংকর তালুকদার আরও বলেন, সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের ভয়ে মুখ না লুকিয়ে তাদের প্রতিরোধ করতে হবে। এসব অবৈধ অস্ত্রবাজ,  চাঁদাবাজদের প্রশাসনের হাতে তুলে দিতে দলমত নির্বিশেষে সহযোগিতা করতে হবে। তাহলেই একদিন সশস্ত্র সন্ত্রাসমুক্ত পার্বত্যাঞ্চল গড়তে পারবো। পাহাড়ের মানুষ নির্ভয়ে জাতীয় রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সম্পৃক্ত হতে পারবে। নিজেদের প্রছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিয়ে জয় করতে পারবে। তিনি অবৈধ অস্ত্রধারী ও চাঁদাবাজদের প্রতিরোধ করতে সাধারণ জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান।

পরে সংবর্ধনায় সভায় শতাধিক বিএনপি’র নেতাকর্মী ফুল দিয়ে আওয়ামী লীগে যোগদান করেন।

image_pdfimage_print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *