অবৈধ অস্ত্রের মুখে পাহাড়ের মানুষ আজ নিরাপত্তাহীন


রাঙামাটি প্রতিনিধি:

পার্বত্যাঞ্চলে নামধারী উপজাতীয় আঞ্চলিক সংগঠনগুলো বাঙালিদের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে রেখেছে। তাদের অবৈধ অস্ত্রের মুখে পাহাড়ের মানুষ আজ নিরাপত্তাহীন। উপজাতি আঞ্চলিক সংগঠনের নামধারী একটি মহল পার্বত্যাঞ্চলকে অশান্ত করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। তাই সরকারকে অতিদ্রুত পার্বত্যাঞ্চল থেকে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার করে সাধারণ পাহাড়ি-বাঙালিদেরকে রক্ষা করা আহ্বান জানান।

শনিবার(৩ফেব্রুয়ারি) সকালে শহরের বনরূপাস্থ কাঠ ব্যবসায়ী সমিতির হল রুমে আয়োজিত পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের জেলা কাউন্সিল অনুষ্ঠানে বক্তারা এসব কথা বলেন। এসময় পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের জেলা আহ্বায়ক মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম এর সভাপতিত্বে এবং যুগ্ম আহ্বায়ক মো. হাবিবুর রহমানের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল মজিদ।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, রাঙ্গামাটি পার্বত্য নাগরিক পরিষদের আহ্বায়িকা বেগম নুর জাহান, পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. সাদেকুর রহমান, পার্বত্য নাগরিক পরিষদের সদস্য সচিব মো. জামাল উদ্দিন, খাগড়াছড়ি পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আসাদুল্লাহ, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহাদাত হোসেন, যুগ্ম সম্পাদক মো. আলমগীর হোসেন প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে বক্তারা আরো বলেন, পার্বত্যাঞ্চলে উপজাতি সশস্ত্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী গুম, খুন, চাঁদাবাজি, অপহরণ অব্যাহত রেখেছে। স্বাধীনতার পর থেকে এ পর্যন্ত সাধারণ বাঙালি

ও পাহাড়িকে হত্যা করেছে এ উপজাতী সন্ত্রাসী সংগঠনগুলো। এখন নতুন করে আবারও বাংলাদেশ নিরাপত্তাবাহিনীকে নিয়ে গভীর ষড়যন্ত্র শুরু করেছে। তাদের এ ষড়যন্ত্রকে প্রতিহত করার জন্য পাহাড়ি-বাঙালিকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান নেতারা।

অনুষ্ঠান শেষে প্রধান অতিথি ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল মজিদ রাঙ্গামাটি জেলা শাখার পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের দুই বছর মেয়াদে ৬১ বিশিষ্ট নতুন কমিটি ঘোষণা করেন। এতে সভাপতি মো. জাহাঙ্গীর আলম, সাধারণ সম্পাদক মো. হাবিবুর রহমান ও সাংগঠিক সম্পাদক মো. কাউছার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *